নিউজপলিটিক্সরাজ্য

নন্দীগ্রামে একইদিনে সভা তৃণমূল এবং শুভেন্দুর, শুভেন্দুকে কটাক্ষ করে কি মন্তব্য করলেন ফিরহাদ?

তৃণমূল কংগ্রেসের উত্থান মূলত নন্দীগ্রাম থেকে। এবার সেই নন্দীগ্রামে এবার চাপে পড়তে শুরু করেছে রাজ্যের শাসক দল। মূলত তার নেপথ্যে রয়েছে রাজ্যের পরিবহনমন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী। বিগত কয়েক মাস ধরে তৃণমূলের সাথে সম্পর্কে চিড় ধরার কারণে দলের সঙ্গে উনার দূরত্ব সৃষ্টি হয়েছে। আর এই নিয়ে বেশ চিন্তায় রয়েছেন শাসক দল। এবারে, একই দিনে তৃণমূলকে চ্যালেঞ্জ করে নন্দীগ্রামে সভা করতে চলেছেন শুভেন্দু অধিকারী। তৃণমূলের সভাতে প্রধান বক্তা হতে চলেছেন কলকাতার মেয়র ফিরহাদ হাকিম।

আরো পড়ুন :  মমতা এখন বাংলার মহামায়া, শুভেন্দুকে নিশানা করে কটাক্ষ মানসের

এদিন শুভেন্দু অধিকারীর কর্মকাণ্ড নিয়ে তৃণমূল শিবিরে আশঙ্কা সৃষ্টি হয়েছে। যদি, ২০২১ সালে সম্পূর্ণ দলবল নিয়ে শুভেন্দু অধিকারী তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দেন তাহলে বেশ সমস্যায় পড়বে রাজ্যের শাসক দল। আর এরই মধ্যে তৃণমূলকে চ্যালেঞ্জ করে নন্দীগ্রামে একইদিনে সভা ডেকে বসলেন শুভেন্দু অধিকারী। আগামীকাল নন্দীগ্রামে ভূমি উচ্ছেদ কমিটির ব্যানারে এই সভা করবেন শুভেন্দু।

আরো পড়ুন :  এই ৭ জেলায় ভারী বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা, সঙ্গে ঝড়ো হাওয়া! জানালো আবহাওয়া দফতর

আজ এই সভা নিয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে ফিরহাদ হাকিম বলেন, শুভেন্দু অধিকারীর উচিত ছিল দলের সঙ্গে যুক্ত হয়ে একই সভায় অংশগ্রহণ করা। কিন্তু উনি দলের সদস্য হওয়া সত্ত্বেও আলাদা নিজের মত একটি সভা ডেকে বসলেন। এটা উনি একেবারেই ঠিক করছেন না। তৃণমূলের সভা মানে আমাদের সবার সভা। উনি তো আমাদের দল থেকে আলাদা নন। এটা উনি ঠিক করেননি।

আরো পড়ুন :  বাংলায় নরহত্যা চলছে বললেন শুভেন্দু, দেখতেই পেলাম না পাল্টা মমতা

প্রসঙ্গত, শুভেন্দু অধিকারীর তরফে জানানো হয়েছে, তার সঙ্গে তৃণমূলের এই সভার কোন যোগ নেই। শুভেন্দু অধিকারীর সভাটি হবে জমি উচ্ছেদ কমিটির ব্যানারে। কিন্তু একই দিনে তৃণমূলকে চ্যালেঞ্জ করে একই জায়গায় সভা ডাকার ফলে গুঞ্জন সৃষ্টি হয়েছে রাজনৈতিক মহলে।

Related Articles

Back to top button