×
বলিউডবিনোদন

Idian Idol 12: ‘বিচারক কী বলবেন, সবটাই ছিল নির্মাতাদের স্ক্রিপটেড’, অমিত কুমারের পর মুখ খুললেন সুনীধি চৌহান

Advertisement

সোনি টিভির জনপ্রিয় রিয়ালিটি শো হল ইন্ডিয়ান আইডিল। অন্যবারের তো এবারেও রমরমিয়ে চলছে জনপ্রিয় এই গানের রিয়েলিটি শো। এই শো থেকে প্রতিবছর ভবিষ্যতের প্রতিভা বাছাই করে আনা হয়। ইতিমধ্যে এই বছরের সিজন নিয়ে শুরু হয়ে গিয়েছে নানান চর্চা। পেজ থ্রিয়ের পাতায় এই রিয়ালিটি শো নিয়ে নানান খবর উঠে এসেছে। চ্যানেল এর টুইটার অ্যাকাউন্টে প্রতিদিনই অংশগ্রহণ করতে আসা নতুন প্রতিযোগীদের কোন না কোন নতুন ভিডিও শেয়ার করা হয়েই থাকে।

Advertisement

তবে বেশ কিছুদিন ধরেই এই রিয়ালিটি শোয়ের নানা তর্ক বিতর্ক লেগেই আছে। সম্প্রতি ইন্ডিয়ান আইডল নিয়ে অমিত কুমার, সোনু নিগম নানান কটুক্তি করেছেন। এবার রিয়ালিটি শো ইন্ডিয়ান আইডলের অন্দ্রমহল নিয়ে বোমা ফাটালেন প্রাক্তন বিচারক সুনীধি চৌহান একটা সময় ইন্ডিয়ান আইডলের বিচারকের আসনে দুবছর ভালো ভালো গায়ক গায়িকার নির্বাচন করেছিলেন। তিনি ইন্ডিয়ান আইডল-এর পঞ্চম ও ষষ্ঠ সিজনে বিচারকের আসনে বসেছিলেন।

এক সাক্ষাৎকারে এবার সেও অভিজ্ঞতাই জানালেন। তিনি বললেন, এই শোয়ের নির্মাতারা যা চাইতেন তেমনটাই করতে হত তাঁকে। তিনি নিজের মতো করে প্রতিযোগিদের নিয়ে কোনো মতামত দিতে পারতেন না। সবটাই ছিল নির্মাতাদের স্ক্রিপটেড। তিনি আরো বলেন, হয়ত শোয়ের টিআরপি বাড়ানোর জন্য দর্শকদের মনোযোগ নিজেদের দিকে টানবার জন্য, দর্শকদের আকর্ষিত করতে নচেৎ দর্শক যাতে চুম্বকের মতো টেলিভিশন সেটের সামনে আটকে থাকে তেমনটা করতে করা হয়। তিনি মনে করেন, এইভাবে হয়তো শোয়ের নির্মাতারা নিজেদের সেরা দেওয়ার চেষ্টা করতো।

Advertisement

প্রসঙ্গত, সুনিধি খুব অল্প বয়সে ন‍্যাশনাল চ্যানেলের একটি সঙ্গীত প্রতিযোগিতায় লড়াই করে প্রথম স্থান অধিকার করেছিলেন। তবে ইন্ডিয়ান আইডিয়ালের পর আর সুনিধি অন্য কোনো প্রতিযোগিতায় বিচারকের ভূমিকা পালন করেননি।

দিন কয়েক আগেই দর্শকের প্রবল সমালোচনার মুখে পড়েছিল এই শো। লেজেন্ড কিশোর কুমার স্পেশ্যাল এপিসোড নিয়ে বিতর্কের ঝড় উঠেছিল সোশ্যাল দুনিয়াতে সেই পর্বে বিচারক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কিশোর পুত্র অমিত কুমার। তিনি এক সংবাদমাধ্যমে জানান, চ্যানেলের কথা অনুযায়ী আর টাকার জন্য বাধ্য হয়ে প্রতিযোগীদের গান ভাল না লাগা সত্ত্বেও তিনি প্রতিযোগীদের প্রশংসা করেছিলেন। প্রতিযোগীদের পাশাপাশি ইন্ডিয়ান আইডলের দুই বিচারক হিমেশ রেশমিয়া এবং নেহা কক্কর ও কিশোর কুমারের গান গাইতে পারেননি তাও বলেছিলেন।

Related Articles

Back to top button