দেশনিউজ

“পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হলে বাণিজ্য করা অসম্ভব”, ভারত চিন বিবাদ নিয়ে নেতিবাচক ইঙ্গিত শ্রিংলার

নয়াদিল্লি:‌ চিন আর ভারতের সম্পর্ক এখন সবথেকে বড় সমস্যার কারণ। দুই দেশের বাগবিতণ্ডা প্রতিদিনই নতুন নতুন মোড় নিচ্ছে। প্রতিদিনই নতুন নতুন এক একটি ঘটনায় চিনের সাথে ভারতের সম্পর্ক এক ধাপ করে খারাপের দিকে এগোচ্ছে। প্রতিদিন চিন আর ভারতের এক একটি বিষয় নিয়ে বিবাদ নতুন খবর নয়। কিন্তু এবার সীমান্তে যতক্ষণ না পর্যন্ত শান্তি ফিরছে, ততক্ষণ পর্যন্ত আগের মতো দুই দেশের মধ্যে বাণিজ্য সম্পর্ক গড়ে ওঠা সম্ভয় নয় বলে সাফ মতামত দিয়েছেন ভারতের বিদেশ সচিব হর্ষবর্ধন শ্রিংলা।

এদিন ভারত চিনের সীমান্ত সমস্যা নিয়ে কথা বলতে গিয়ে বিদেশ সচিব হর্ষবর্ধন শ্রিংলা জানান, এই উত্তপ্ত পরিবেশে শান্তি ফিরতে বেশ বেগ পেতে হবে চিনকে। এদিন ইন্ডিয়ান কাউন্সিল অফ ওয়ার্ল্ড অ্যাফেয়ার্স-এর সভায় চিনের প্রতি তার খারাপ মনোভাব স্পষ্টভাবে ফুটে ওঠে। তিনি বলেন, “আমরা প্রথম চিন সীমান্তে আমাদের দেশের বীর সেনাদের জীবন হারিয়েছি। এমন মৃত্যুর ঘটনা শেষ ৪০ বছরে ঘটেনি। ১৯৬২ সালের পর থেকে এমন পরিস্থিতি আর কখনই তৈরি হয়নি। ‌ভারত কিছুতেই আগের মতো চিনের সঙ্গে বাণিজ্য সম্পর্ক রাখতে পারবে না”।

কিছুদিন আগেই চিন আর ভারতের ঝামেলার কারণ হয়ে দাড়িয়েছিলো লাদাখের প্যাংগং অঞ্চল। এমনকি প্যাংগং তাসো লেকের দক্ষিণ দিকেও চিনা সেনার এই সক্রিয়তা রুখতে বাধা দেয় ভারতীয় বাহিনী৷ প্যাংগং হ্রদের কাছে চিনের এই অনুপ্রবেশের চেষ্টা ভারত আর চিনের সম্পর্ক নতুন করে আরও একধাপ খারাপের দিকে এগোয়।

এদিন ভারতের কথায় শ্রিংলা বলেন, ‘‌ভারত তাঁর সার্বভৌমত্ব রক্ষার বিষয়ে কোনওরকম আপস করবে না। কিন্তু তার মানে এই নয় যে ভারত আগ্রাসী মনোভাবও মেনে নেবে”।

 

Tags

Related Articles

Back to top button