নিউজরাজ্য

প্রবল গতিতে ধেয়ে আসছে ‘যশ’, কারা দিল এই ঘূর্ণিঝড়ের নাম

রবিবার ২৩ তারিখ উড়িষ্যা এবং বাংলা উপকূল লক্ষ্য করে আসার জন্য তৈরি হবে

×
Advertisement

আম্ফানের পর এবার পশ্চিমবঙ্গের বুকে নতুন অশনি সংকেত ভয়াল ভয়ঙ্কর সাইক্লোন যশ। কিছুদিন আগেই ভারতের পশ্চিম উপকূলে এসেছিল ঘূর্ণিঝড় টাউক্তে। ওই ঘূর্ণিঝড় এর জেরে পুরো লন্ডভন্ড হয়ে গিয়েছিল পশ্চিম উপকূল। গুজরাট, মহারাষ্ট্র, গোয়া, কেরালা দক্ষিণ পশ্চিম ভারতের প্রায় প্রত্যেকটি রাজ্য একেবারে তছনছ হয়ে গেছিল। সেই ঘূর্ণিঝড় এর রেশ কাটতে না কাটতেই এবারে ভারতের পূর্ব উপকূলের দিকে আসছে নতুন একটি ঘূর্ণিঝড় যার নাম যশ।

Advertisement

বাংলায় যশ কথার অর্থ প্রভাব-প্রতিপত্তি হলেও ওমান ভাষায় কিন্তু এর মানে একেবারেই আলাদা। টাউক্তে ঘূর্ণিঝড়ের নামকরণ করা হয়েছিল মায়ানমার ভাষা থেকে। মায়ানমার ভাষায় যার অর্থ দাঁড়ায় টিকটিকি। সেরকম যশ কিন্তু কোনো বাংলা বা হিন্দি নাম নয়, বরং এটি এসেছে ওমান ভাষা থেকে। ওমান ভাষায় Yaas এর অর্থ হল হতাশা।

আগের বছর খানিকটা এরকম সময়ে বাংলা উপকূলে আছড়ে পড়েছিল ঘূর্ণিঝড় আম্ফান। সেই রেশ এখনো কাটেনি। তাই, এবারে নতুন ঘূর্ণিঝড় যশ এর জন্য ইতিমধ্যে প্রহর গোনা শুরু করে দিয়েছে বাংলার উপকূলবর্তী এলাকার মানুষ।

Advertisement

আগামী রবিবার ২৩ তারিখ উড়িষ্যা এবং বাংলা উপকূল লক্ষ্য করে আসার জন্য তৈরি হবে। রবিবার মারাত্মক আকার ধারণ করে আগামী ২৭ তারিখ উপকূলের কাছাকাছি আসতে চলেছে এই ঘূর্ণিঝড়। ২৩ তারিখ থেকেই এই নিম্নচাপ ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হবে। নিম্নচাপ একটি অতি গভীর নিম্নচাপে পরিণত হবে এটি, তারপর তৈরি হবে সাইক্লোন। তবে আগামী ১-২ দিনের মধ্যে বোঝা যাবে সাইক্লোন ঠিক কতটা ভয়ঙ্কর হবে।

Related Articles

Back to top button