বলিউডবিনোদন

শিশুপুত্রের সব রান্না একা হাতে করেন, বাড়িতেই ছেলেকে পেয়ে অলিম্পিকে স্বর্ণপদক জয়ের স্বাদ পান ‘বিবাহ’-এর পুনম

×
Advertisement

গত বছর প্রথমবার মা হয়েছিলেন বিবাহের পুনম ওরফে অমৃতা রাও। গত ১ নভেম্বর অমৃতা রাও ও স্বামী জে আলমোলের সংসারে ফুটফুটে একটি পুত্র সন্তানের জন্ম হয়। মুম্বাইয়ের একটি বেসরকারি হাসপাতালে অভিনেত্রীর যখন লেবার পেন হয় সেইসময় অভিনেত্রীর যখন অপারেশন হয় সেইসময় স্ত্রীকে সঙ্গ দিয়েছিলেম আনমোল। সন্তান প্রসবের পর ছেলে হওয়ার কথা প্রথম রেডিও জকি জে আনমোলই সোশ্যাল মিডিয়াতে প্রথম পোস্ট করেন। এবং সকল ভক্তদের কাছে নতুন মা-বাবা উভয়ই তাদের শুভেচ্ছা ও আশীর্বাদের জন্য সবাইকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন।

Advertisement

প্রথম সন্তানকে পেয়ে বেশ খুশি দুজনে এবং পরিবারের সদস্যরা। ছেলে জন্মের পর এই খবর প্রকাশ্যে আসতে সেলিব্রেটি থেকে ফ্যানরা উভয়েই শুভেচ্ছা বার্তা জানিয়েছেন এই জুটিকে। ছেলেকে নতুন বাবা মা ভালোবেসে ডাকে বীর। দেখতে দেখতে বীর এখন অনেকটাই বড় হয়ে গিয়েছে। বীরের বয়স এখন ৯ মাস ৷ রবিবার ৯ মাস বয়স পূর্ণ করল এই একরত্তি ৷ ঘটনাচক্রে এ বছর এইদিন ছিল সারা বিশ্বজুড়ে বন্ধুত্ব দিবস ৷ আর ফ্রেন্ডশিপ ডে উপলক্ষে একটি অন্তরঙ্গ পারিবারিক ছবি পোস্ট করেছেন অমৃতা নিজের ইন্সটাগ্রাম হ্যান্ডেলে।

নিজের দুই কাছের মানুষকে বেস্ট ফ্রেন্ড বলে আখ্যা দিলেন। স্বামী আর ছেলের সাথে মিষ্টি মুহূর্ত শেয়ার করে ক্যপশানে লিখেছেন, ‘‘ বাতাসে বন্ধুতা ৷ আজ, ফ্রেন্ডশিপ ডে-তে আমাদের ছোট্ট বন্ধু ন’ মাস বয়স পূর্ণ করল ৷ প্রথম ৯ মাস তুমি আমার ভিতরে ছিলে ৷ আজ আমার কোলে তুমি ৯ মাস পূর্ণ করলে ৷ ’’ অমৃতার সংযোজন, ‘‘এই ১৮ মাসে প্রতিদিন আমাদের বন্ধুত্ব আনমোল ও আমাকে অনেক কিছু শিখিয়েছে ৷’’ এই ১৮ মাস ধরে তিনি বেশ আনন্দের সাথে মাতৃত্ব উপভোগ করছেন।

Advertisement

এর মাঝেই অমৃতার সংযোজন করলেন সবথেকে তৃপ্তিদায়ক হল যখন তিনি ছেলের সব খাবার নিজেই রান্না করেন এবং একরত্তির প্লেটে তাঁর রান্না করা খাবারও পড়ে থাকে না ৷ তবে তিনি এও স্বীকার করেন বীরকে ঘুম পাড়ানো যে খুবই কঠিন কাজ তাঁর পক্ষে। অভিনেত্রী আরো বলেছেন, যখন তিনি বীরকে ঘুম পাড়ান, তখন তার মনে হয় তিনি যেন অলিম্পকে স্বর্ণপদক জিতেছেন। তিনি আরো বলেন, বীর ঘুমোলে একটু স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলেন অমৃতা। তবে একরত্তির ঘুম ভাঙলে তাঁর আনন্দ দ্বিগুণ হয়ে যায় ৷ এই ছবি পোস্ট করার সাথে সাথে অনুগামীরা ভালোবাসা জানিয়েছেন অমৃতাকে।

উল্লেখ্য, সাত বছর প্রেম করে ২০১৬ সালে রেডিও জকি আনমোলকেই রিয়েলে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়েছিলেন বলি সুন্দরী অমৃতা। বিয়ের পর বেশ কম সিনেমা করেছেন। অমৃতাকে শেষ পর্দায় দেখা গিয়েছে বাল ঠাকরের বায়োপিক ‘ঠাকরে’তে, যেখানে অভিনেতা নওয়াজউদ্দিনের স্ত্রী মীনার চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন তিনি। তবে এখন তিনি নিজের সংসার আর ছেলেকে প্রাধান্য দিচ্ছেন।

Related Articles

Back to top button