কলকাতানিউজরাজ্য

প্রতীক্ষার অবসান! অবশেষে মাদ্রাসার জেনারেল ট্রানস্ফার নোটিফিকেশন প্রকাশ করল রাজ্য সরকার

Advertisement

কলকাতা: অবশেষে মাদ্রাসার (Madrasa) জেনারেল ট্রানস্ফার নোটিফিকেশন (Genereln Transfar Notification) প্রকাশ করল রাজ্য। স্কুলের (School) জন্য চালু না হলেও গতকাল, শুক্রবার (Friday) মাদ্রাসা সার্ভিস কমিশন মাদ্রাসার শিক্ষক ও শিক্ষাকর্মীদের (Teachers) জন্য অনলাইন জেনারেল ট্রান্সফার নোটিফিকেশন প্রকাশ করল। ২০১০ সালে জেনারেল ট্রান্সফারের নির্দেশিকা অনুসারে এই অনলাইন জেনারেল ট্রানস্ফার বিষয়ে আগামিকায়াল, রবিবার (Sunday) কমিশন ওয়েবসাইটে- http://www.wbmsc.com বিস্তারিতভাবে দেওয়া হবে।

Advertisement

গত জেনারেল ট্রান্সফারের কাউন্সিলিং কিছুদিন আগেই সমাপ্ত হলেও, কয়েক হাজার শিক্ষক ও শিক্ষাকর্মী এই ট্রান্সফারে আবেদন করতে পারেননি । মাদ্রাসা সার্ভিস কমিশন সেই সকল শিক্ষক ও শিক্ষাকর্মীদের দাবি মেনে এই নোটিফিকেশন প্রকাশ করলো। ২০১৩ সালে পর সুদীর্ঘ সময় পরে আজ ভোটের প্রাক্কালে মাদ্রাসা সার্ভিস কমিশনের পক্ষ থেকে General transfer এর online application সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে।

অল পোস্ট গ্ৰ্যজুয়েট টিচার্স ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশনের লাগাতার আন্দোলন সহ MSC, DME তে ডেপুটেশন জমা এবং নবান্নের MA&ME ডিপার্টমেন্টে ডেপুটেশন জমার করার ফলশ্রুতি আজকের এই নোটিফিকেশন। সুদীর্ঘ কয়েক বছর ধরে বাড়ি থেকে বহুদূরে কর্মরত শিক্ষক শিক্ষিকাদের জন্য এটি একটি বিরাট সুযোগ বাড়ির কাছে আসার বলে মনে করা হচ্ছে। পাশাপাশি মাদ্রাসা সার্ভিস কমিশনকে অনুরোধ করা হবে যাতে বদলির আবেদনের ক্ষেত্রে NOC সহ কোন বিষয়ে যেন কোন জটিলতা না থাকে এবং আবেদন পদ্ধতি যেন সরল হয়।

Advertisement

অন্যদিকে, সকল মাদ্রাসাগুলি দ্রুত যাতে তাদের পিপিও গুলি কমিশনে জমা করেন তার সুবন্দোবস্ত করার আবেদন করা হচ্ছে। মাদ্রাসার শিক্ষক রাজকুমার লাহা বললেন যে, “আমাদের সুদীর্ঘ অপেক্ষার অবসান হলো। মাদ্রাসা সার্ভিস কমিশনকে বিশেষ ধন্যবাদ।এই সাফল্যের জন্য অল পোস্ট গ্ৰ্যজুয়েট টিচার্স ওয়েলফেয়ার এসোসিয়েশনের ধারাবাহিক পদক্ষেপকেও কুর্নিশ জানাই। এর আগে ২০১৩ সালের শেষবারের জন্য জেনারেল ট্রান্সফারের বিজ্ঞপ্তি বেরিয়েছিল।

সুদীর্ঘ সময়ব্যাপী বাড়ি থেকে দূরে চাকুরীরত সকল শিক্ষক-শিক্ষিকা ও শিক্ষাকর্মীরা এর ফলে উপকৃত হবেন। অনলাইন প্রক্রিয়ায় আবেদনের ক্ষেত্রে এনওসি সহ অন্যান্য জটিলতা গুলি ব্যতিরেকে সহজ-সরল ভাবে যাতে অনলাইনে আবেদন করা যায় তার সুবন্দোবস্ত করার জন্য এবং মাদ্রাসার শূন্যপদের পিপিও গুলি যাতে দ্রুত জমা পড়ে কমিশনে সেই বিষয়ে কমিশনকে ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে।

এ প্রসঙ্গে অল পোস্ট গ্রাজুয়েট টিচার্স ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশনের সম্পাদক চন্দন গড়াই বলেন, ”ভোটের আগে মাদ্রাসা সার্ভিস কমিশন ট্রানস্ফার নোটিফিকেশন প্রকাশ করায় কয়েক হাজার শিক্ষক ও শিক্ষাকর্মী উপকৃত হবে। এই জেনারেল ট্রান্সফারে এনওসি যাতে সমস্যা না হয় সে বিষয়ে কমিশনকে দেখতে হবে। ভোটের আগে এভাবেই স্কুল শিক্ষক ও শিক্ষাকর্মীদের জন্য অনলাইন জেনারেল পোর্টাল খুলে দিক শিক্ষা দপ্তর।“

Advertisement

Related Articles

Back to top button