ব্যবসা-বানিজ্য ও অর্থনীতি

PPF Investmemt: নতুন বছরে ব্যাপক সুযোগ! এই সরকারী প্রকল্পে বিনিয়োগ করে পেয়ে যান ২ কোটি টাকা

পিপিএফ অ্যাকাউন্ট খুলতে আপনাকে আপনার নিকটবর্তী ব্যাঙ্ক বা পোস্ট অফিসে যেতে হবে

×
Advertisement

বর্তমান মূল্যবৃদ্ধির বাজারে প্রায় প্রত্যেক মানুষ চেষ্টা করেন সামান্য অতিরিক্ত উপার্জনের জন্য। পরিবারের চাহিদা মেটাতে দিনরাত পরিশ্রম করতে হয় বাড়ির কর্তাকে। আর সকলেই পরিবারের মানুষের জন্য অবসরের পর যাতে না কোনো সমস্যা হয়, সেই খেয়াল রাখার চেষ্টা করেন। তবে এখনকার দিনে সরকারি হোক বা বেসরকারি কোন জায়গাতেই ঠিকমতো পেনশন পাওয়া যায় না। তাই আজকের এই প্রতিবেদনে এমন এক প্রভিডেন্ট ফান্ড সম্বন্ধে আপনাদের জানাবো যা আপনাদের ভবিষ্যৎকে সুরক্ষিত করবে।

Advertisement

পিপিএফ বা পাবলিক প্রভিডেন্ট ফান্ড সম্বন্ধে আজকালকার দিনে মোটামুটি সকলেই ওয়াকিবহাল। এতে আয়করও ছাড় পাওয়া যায়। পিপিএফ অ্যাকাউন্ট খুলতে আপনাকে আপনার নিকটবর্তী ব্যাংক বা পোস্ট অফিসে যেতে হবে। বছরে সর্বনিম্ন ৫০০ টাকা এবং সর্বোচ্চ ১.৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত জামাতে পারবেন আপনি আপনার এই পিপিএফ অ্যাকাউন্টে। এই মুহূর্তে পিপিএফ অ্যাকাউন্টে সুদের পরিমাণ ৭.১ শতাংশ। বছরের শেষ দিনে আপনার অ্যাকাউন্টে সুদের টাকা জমা হবে।

কোনও ব্যক্তি ২৫ বছরে যদি অ্যাকাউন্ট খোলেন তিনি যদি প্রতি বছর পয়লা এপ্রিলে দেড় লাখ টাকা জমা দেন, পরের বছর তিনি ৩১ মার্চে সুদ হিসেবে ১০,৬৫০ টাকা পাবেন। ফলে অর্থবর্ষের প্রথম দিনেই অ্যাকাউন্টে টাকা থাকবে ১,৬০,৬৫০ টাকা ৷ ফের পরের বছর পয়লা এপ্রিলে দেড় লক্ষ টাকা জমা দিলে অ্যাকাউন্ট ব্যালান্স দাঁড়াবে ৩,১০,৬৫০ টাকা ৷ এই রকম করেই ১৫ বছরে ৪০,৬৮,২০৯ টাকা জমবে। ২০ বছরে অ্যাকাউন্ট ব্যালান্স হবে ৬৬,৫৮,২৮৮ টাকা হবে ৷ এই ভাবে অ্যাকাউন্ট ৩৫ বছর যদি চলে সেক্ষেত্রে অ্যাকাউন্টের মোট ব্যালান্স হবে ২ কোটি ২৬ লক্ষ টাকা৷

Advertisement

Related Articles

Back to top button