দেশনিউজ

পাকিস্থান থেকে ভারতে আসা ১১ জন হিন্দু শরণার্থীর রহস্যজনক মৃত্যু

এদিন রবিবার সকালে রাজস্থানের যোধপুর থেকে ১১ জন ব্যক্তির মৃতদেহ উদ্ধার হয়। জানা গিয়েছে, ওই মৃত ব্যক্তিরা পাকিস্তানের এক হিন্দু পরিযায়ী পরিবার। মৃতদেহ গুলি একটি খামার থেকে উদ্ধার হয়েছে বলে জানা গিয়েছে পুলিশ সূত্রে। ঘটনার তদন্তের পর ও মৃত দেহগুলিকে শনাক্ত করে পুলিশ জানিয়েছে কোনো ধস্তাধস্তির চিহ্ন মেলেনি। এছাড়া কোনো আঘাতের চিহ্নও ছিল না মৃত ব্যক্তিদের দেহে। পুলিশের অনুমান কোনো রাসায়নিক দ্রব্য খেয়েই আত্মহত্যা করতে পারেন তাঁরা।

আরো পড়ুন :  দেশ জুড়ে পালিত হচ্ছে প্রজাতন্ত্র দিবস, শহীদ জওয়ান সন্তোষ বাবুকে মরণোত্তর মহাবীর চক্র সম্মান

কারণ হিসেবে পুলিশ জানিয়েছে, খামারের আশেপাশে রাসায়নিকের গন্ধ নাকে এসেছে। তবে ওই পরিবারের একজন জীবিত ব্যক্তির হদিশ পেয়েছে পুলিশ। ওই ব্যক্তির কাছ থেকে পুলিশ জানতে পারে, তাঁরা দেচু এলাকার লড়তাগ্রামে বসবাস করতেন। সুপারিনটেনডেন্ট অব পুলিশ (গ্রামীণ) রাহুল ভাট জানিয়েছেন, “জেরায় জীবিত ওই ব্যক্তি জানিয়েছেন তিনি কিছুই জানেন না। ঘটনাটি শনিবার রাতে হয়েছে বলে অনুমান”।

আরো পড়ুন :  পেঁয়াজের দাম আকাশছোঁয়া, বাংলাদেশের রোষের মুখে ভারত

ওই এলাকাটি খতিয়ে দেখার জন্য ফরেনসিক বিভাগ ও ডগ স্কোয়াডকে ডেকে পাঠানো হয়েছে বলে জানানো হয়েছে পুলিশের তরফে। জানা গিয়েছে, ওই পরিবার একটি খামার চুক্তির ভিত্তিতে ভাড়া নিয়েছিলেন। পরিবারটি ভিল সম্প্রদায়ের। পাকিস্তান থেকে আসা অভিবাসী।

আরো পড়ুন :  আজ সৌরভের অ্যাঞ্জিওগ্রাম হওয়ার কথা, হাসপাতালে যেতে পারেন মুখ্যমন্ত্রী

Related Articles

Back to top button