টলিউডবিনোদন

Tota Roychowdhury: একদিনের মধ্যে সকলের প্রিয় রোহিত সেনের জীবন পালটে গিয়েছিল! অভিনেতা নিজেই জানালেন সে কথা

টোটা রায়চৌধুরীর থেকে বাঙালী মা কাকিমা এই অভিনেতাকে রোহিত সেন বলে ডাকতে বেশি পছন্দ করেন। বর্তমান সময়ে জনপ্রিয় অভিনেতাদের মধ্যে অবশ্যই প্রথম তালিকায় উঠে এসেছে টোটা রায়চৌধুরী। ছোট পর্দা থেকে বড় পর্দা এমনকি বলিউডেও এখন অবাধ বিচরণ টোটার। তবে টোটা এখন সবচেয়ে বেশি জনপ্রিয়তা পেয়েছে শ্রীময়ী ধারাবাহিকে। শ্রীময়ীর প্রতি রোহিত সেনের ভালোবাসা বহু মা কাকিমার মন ছুঁয়ে গিয়েছে।

টেলিভিশনের পাশাপাশি বড় পর্দাতে ভালো কাজ করে চলেছেন এই অভিনেতা। কিন্তু একটা সময় এই অভিনেতা একজন ভালো অভিনেতা হয়েও তাঁর যোগ্য সম্মান এমনকি প্রাপ্য কাজটুকুও পাননি। তবে একদিনের মধ্যেই বদলে গিয়েছিল আজকের রোহিত সেনের ভাগ্য। কিন্তু কিভাবে? ঠিক কি হয়েছিল জানালেন অভিনেতা নিজেই।

এ কথা সত্যিই একটা সময় নিজের যোগ্যতা অনুযায়ী ভালো চরিত্র খুঁজে পাননি অভিনেতা টোটা রায়চৌধুরী। এমনকি কোন পরিচালক বা প্রযোজনা সংস্থা হয়তো কথা হয়ে যাওয়ার পরেও তাঁকে শ্যুটিং এর আগের রাতে নাকোচ করে দিয়েছেন। হয়তো তারা তেমন ভাবে তাঁর ওপর আস্থা রাখতে পারেননি
। আর সেই কারণেই এই প্রতিভাবান অভিনেতা নিজের জীবনের অনেকগুলো মূল্যবান বছর নিজের অভিনয় দক্ষতা দর্শকদের সামনে তুলে ধরতে পারেননি। কোন কারণে আজ তিনি দর্শক থেকে পরিচালক-প্রযোজকদের পছন্দের হয়ে উঠলেন এই অভিনেতা?

সেই কথা নিজেই নিজের অনুগামীদের জানালেন টোটা রায়চৌধুরী। ১৮ বছর আগে ২রা অক্টোবর মুক্তি পেয়েছিল প্রয়াত ঋতুপর্ণ ঘোষ পরিচালিত চোখের বালি। সেই ছবিতে বিহারীবাবুর চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন টোটা রায়চৌধুরী। এই সিনেমাতে মহেন্দ্রের চরিত্রে প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায় অভিনিয় করেছিলেন। টলিউডের সুপারস্টার বুম্বাদার মতে গুরুত্বপূর্ণ ছিল টোটা রায়চৌধুরীর চরিত্র‌ও। আর এই ছবি যেন এক রাতের মধ্যে বদলে দিয়েছিল অভিনেতা টোটা রায়চৌধুরীর গোটা অভিনয়ের জীবনের গ্রাফ।

কোন মানের অভিনেতা টোটা রায়চৌধুরী নিজের অভিনয় শৈলী দিয়ে বুঝিয়েছিলেন এই ছবির মাধ্যমে। আর তারপর থেকেই খুব একটা পেছনে ফিরে তাকাতে হয়নি এই অভিনেতাকে। যদিও এর পরও টলিউড সেইভাবে টোটা রায়চৌধুরীর মতো অভিনেতা কে ব্যবহার করেননি, তবে চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়েছে বলিউড। তবে আজ দর্শকেরা স্বীকার করে নিয়েছেন এমন একজন অভিনেতার অভিনয় টলিউডে আরো অনেক বেশি প্রয়োজন ছিল কিন্তু যা আজ হয়নি। আর এই সবকিছুর জন্য টোটা রায়চৌধুরী এদিন ধন্যবাদ জানিয়েছেন প্রয়াত পরিচালক ঋতুপর্ণ ঘোষকে। যে মানুষটা তাঁর ওপর বিশ্বাস রেখে বিহারীবাবু হয়ে ওঠার সুযোগ দিয়েছিলেন। এছাড়াও এদিন প্রযোজনা সংস্থা এসভিএফ কেও ধন্যবাদ জানিয়েছেন টোটা রায়চৌধুরী।

Related Articles

Back to top button