বাংলা সিরিয়ালবিনোদন

Khukumoni home Delivery: ফুলশয‍্যা হবেই, স্বামীর মাথায় দুধ ঢালায় দুষ্টু দেওরের মুখে রুটি ঠুঁসে দিল খুকুমণি! রইলো ভিডিও

Advertisement

সন্ধ্যা ৬ঃ৩০ বাজলেই টিভির পর্দায় চলে আসে খুকুমণি। আর খুকুমণি মানেই গুড় দিয়ে রুটি, চিনি দিয়ে চা, খুকুমণির রান্না চেটেপুটে খা’! আর খুকুমণির এই ডায়লগ সকল মা কাকিমার মুখে মুখে। কিছুদিন আগে খুকুমণির সিঁথিতে সিঁদুর ভরে দেয় বিহান! আর তারপর সে জানায়, অন্য সবার মতো তাঁরও ফুলশয্যা হবে। মানসিক ভারসাম্যহীন এই ছেলেটিকে ‘রাজপুত্তুর’ বলে ডাকে বাপ-মা মরা খুকুমণি। তবে, সিঁথিতে সিঁদুর পরতেই সে বিহানের বাড়ির সদস্যদের সাথে লড়তে শুরু করেছে মুখোমুখি। যাতে এই ছেলেটিকেও সে ফিরিয়ে দিতে পারে যোগ্য সম্মান। 

Advertisement

আবারও মারপিটের মুডে ফিরে এসেছে সকলের প্রিয় খুকুমণি। বিহানের গায়ে যে একটাও আঁচড় লাগাতে দেবেনা তা ফের বুঝিয়ে দিল বিহানের শত্তুরদের। নিজের রাজপুত্তুরের জন্য মারামারি, কাটাকাটি করেই একাই লড়াই চালিয়ে যাচ্ছে । মানসিক ভারসাম‍্যহীন ‘রাজপুত্তুর’ ওরফে বিহানের এর বিরুদ্ধে তার পরিবারের সদস‍্যরাই একের পর এক চক্রান্ত করে চলেছে। আর অসহায় বিহানের কষ্ট দেখে মায়া মমতায় ভরা খুকুই এখন হয়ে উঠেছে রাজপুত্তুরের ত্রয়ী। তবে এবার রাজপুত্তুরের সঙ্গে নিজের ফুলশয‍্যার দায়িত্বটাও নিজেই নিল খুকুমণিই।

বিহানের দুষ্টু সৎ ভাই, দজ্জাল সৎ মায়ের কাছ থেকে প্রতিবাদী খুকুমণি নিজের সাথে বিহানের বিয়ের আগে থেকে আগলাচ্ছে। তবে খুকুর মাথায় সিদুঁর দিতে এখন আরো বেশি প্রতিবাদী হয়ে গিয়েছে। সম্প্রতি স্টার জলসার তরফ থেকে নতুন প্রমো ভাইরাল হয়েছে। আর সেই নতুন প্রমোতে দেখা যাচ্ছে ফের একবার বিহানের গায়ে হাত তুলেছে খুকুর ভিলেন দেওর। পাগল দাদার মাথায় দুধ ঢেলে দেয় আর তা সহ্য করতে পারছেনা। আর তারপরেই নিজের দেওরকেই মারধর করছে খুকুমণি। দেওরের মুখের মধ্যে রুটি আর গুড় ঠেঁসে দিয়ে সে বুঝিয়ে দিয়েছে সে বিহানকে চোখের আড়াল করবে না! কোনও ক্ষতি হতে দেবে না!

Advertisement

আর বিহান তারপরেই সরল মনে খুকুকে তপ্রশ্ন করে, ‘তাহলে কি ফুলশয্যা হবে না’? তখন খুকুমণি উত্তর দেয়, ‘কেন হবে না, এই তো আমি নিজের হাতে তোমায় সাজিয়ে দেব’! তবে ইতিমধ্যেই এই প্রমো শেয়ার হতেই গুড় আর দুধের এই কম্বিনেশন নিয়ে জোর ট্রোলিং শুরু নেটদুনিয়াতে। সাথে এইভাবে দুধ আর রুটি নষ্ট করা নিয়েও প্রতিবাদ উঠেছে, একজন লিখেছেন, ‘সত্যি বলছি, রোজ রোজ এই খাবার নষ্ট করা, খাবার ফেলে দেওয়াটা মোটেও ভালো লাগছে না!’, আর একজন লিখেছেন, ‘ধারাবাহিক গুলো সস্তা বিনোদনের নামে ভুল বার্তা দিচ্ছে’র মতো। তবে হাজার ট্রোলিং এর মাঝে খুকুমণি এখন স্টার জলসার টিআরপির ট্রাম্প কার্ড হয়ে উঠেছে। মিঠাইকে ছাড়া বাকি সব ধারাবাহিককে পিছনে ফেলে দিয়েছে। এবার এটাই দেখার বিহান আর রাজপুত্তুরের সংসার কেমন টিআরপি ধরে রাখতে পারে।

Advertisement

Related Articles

Back to top button