দেশনিউজ

কপ্টার দুর্ঘটনায় প্রয়াত বাংলার ছেলে সতপাল, শোকের ছায়া বাংলায়

Advertisement

৮’ই ডিসেম্বর এক ভয়াবহ বিমান দুর্ঘটনায় কেঁপে উঠল গোটা ভারত। দেশ হারালো তাদের অমূল্য সম্পদকে। আকাশপথেই বায়ুসেনার নির্ভরযোগ্য ও নবীনতম সদস্য ‘এমআই-১৭ভি৫’ (Mi-17V5) হেলিকপ্টারটি ভেঙে পড়ে। মুহুর্তের মধ্যে তাতে আগুন ধরে যায়, যা কেড়ে নিয়েছে ১৩টি অমূল্য প্রাণ। এই দুর্ঘটনাতেই দেশের প্রথম চীফ অফ ডিফেন্স স্টাফ বিপিন রাওয়াত ও তাঁর স্ত্রী মধুলিকা রাওয়াত প্রয়াত হয়েছেন। গোটা দেশজুড়ে চলছে শোকের আমেজ।

Advertisement

বুধবার দিল্লি থেকে বিশেষ বিমানে তামিলনাড়ুর সুলুরে যাচ্ছিলেন বিপিন রাওয়াত। তামিলনাড়ুর কুন্নুরেই ভেঙে পড়ে কপ্টারটি। এদিন কপ্টারে ছিলেন মোট ১৪ জন। এই বিমান দুর্ঘটনায় বিপিন রাওয়াত ও তার স্ত্রী সহ মোট ১৩ জন নিহত হয়েছেন। বিপিন রাওয়াতের ব্যক্তিগত নিরাপত্তারক্ষী হাবিলদার সৎপাল রাইয়ের মৃত্যুতেও শোকের ছায়া নেমেছে পাহাড়ে (দার্জিলিং)।

এদিন বিমানে ছিলেন, দেশের প্রথম চীফ অফ ডিফেন্স স্টাফ বিপিন রাওয়াত, তাঁর স্ত্রী মধুলিকা রাওয়াত, তার ব্যক্তিগত নিরাপত্তারক্ষী হাবিলদার সৎপাল রাই। এছাড়াও ঐ বিমানে ছিলেন ব্রিগেডিয়ার এলএস লিড্ডার, লেফটেন্যান্ট কর্নেল হরজিন্দর সিং, নায়েক গুরসেবক সিং, নায়েক জিতেন্দ্র কুমার, ল্যান্সনায়েক বিবেক কুমার, ল্যান্সনায়েক বি সাই তেজা। হেলিকপ্টারটি চালাচ্ছিন উইং কমান্ডার পৃথ্বী সিংহ চৌহান সহ মোট চার চপার কর্মী, গ্রুপ ক্যাপ্টেন বরুণ সিংহ। এনাদের মধ্যে এখনো পর্যন্ত ক্যাপ্টেন বরুণ সিংহই মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ে যাচ্ছেন। বর্তমানে লাইফ সাপোর্টে রয়েছেন তিনি।

Advertisement
Advertisement

Related Articles

Back to top button