দেশনিউজ

কেন্দ্রের বাজেট অনুসারে হোক রাজ্যের বাজেট, প্রস্তাব প্রধানমন্ত্রীর

Advertisement
×

নয়াদিল্লি: কেন্দ্রের বাজেট (Budget) অনুসারে হোক রাজ্যের বাজেট, প্রস্তাব প্রধানমন্ত্রীর (Prime Minister)। নীতি আয়োগের বৈঠকে মোদির (Modi) এই প্রস্তাবের বিরোধীতা করেছে বাম (Left Font), কংগ্রেস (Congress) ও তৃণমূল (TMC)। বিরোধী দলগুলির  দাবি, মোদির এই প্রস্তাব ভারতীয় যুক্তরাষ্ট্রীয় পরিকাঠামোর মুলে আঘাত করছে। আজ, শনিবার (Saturday) সব রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের (Chief Minister) সাথে নীতি আয়োগের ষষ্ঠ বৈঠকের আয়োজন করা হয় কেন্দ্রের (Central Govt) তরফে।

Advertisement
Advertisement

জানা গেছে, ভারচুয়াল এই বৈঠকের সভাপতিত্ব করেন নরেন্দ্র মোদি। নীতী আয়োগের এই বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন বিভিন্ন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী সহ কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলির উপরাজ্যপালেরা। এদিনের এই বৈঠক বয়কট করেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিং। এদিনের বৈঠকে কেন্দ্র ও রাজ্যের সমন্বয়ের পক্ষে সওয়াল তুলে মোদি বলেন, “দেশে উন্নয়নের মূল ভিত্তি হল কেন্দ্র ও রাজ্যের সমন্বয়।

Advertisement

ভারতের উন্নতির জন্য সহযোগিতামূলক কাঠামো   প্রয়োজন আমাদের। কেন্দ্র ও রাজ্যের  প্রতিযোগিতামূলক এবং সহযোগিতামূলক সমন্বয় বজায় রেখেই চলা উচিত।”  প্রধানমন্ত্রী তাঁর বকৃতায় বলেন, অতিমারির সময়ে রাজ্য সরকারগুলি কেন্দ্রের সাথে যৌথভাবে কাজ করেছে তা এদেশে এক ভাবমূর্তী তৈরী করেছে যা যথেষ্ট প্রশংসনীয়। প্রধানমন্ত্রী বলেন, আগামী দিনেও দেশের আর্থিক উন্নতির কথা মাথায় রেখে নিজের মধ্যে সমন্বয় বজায় রেখেই কেন্দ্র ও রাজ্যের বাজেট হওয়া উচিৎ।

Advertisement
Advertisement

অর্থাৎ কেন্দ্রের বাজেট অনুসারেই হবে রাজ্যের বাজেট। কিন্তু নরেন্দ্র মোদির এই প্রস্তাবকে মান্যতা দে্ননি বিরোধীরা। বিরোধীদল গুলির মতে এই প্রস্তাবকে একেবারের ‘সংবিধান বিরোধী’। এবিষয়ে কংগ্রেস নেতা প্রদীপ ভট্টাচার্য বলেন, কেন্দ্র ও রাজ্যের বাজেটের বিষয় অনেক সময় আলাদা হয়ে থাকে। তাঁদের মতে, কেন্দ্রে উপর ভরসা করে বসে থাকলে, রাজ্যের উন্নয়ন কখনই সম্ভব নয়। প্রধানমন্ত্রীর প্রস্তাবটি আসলে যুক্তরাষ্ট্রীয় পরিকাঠামোতে আঘাত করা বলেই মনে করছেন বিরোধীরা।

তৃণমূল মুখপাত্র কুণাল ঘোষ বলেন, কেন্দ্রের এই প্রস্তাব কখনই মানা সম্ভব নয়। কুণাল বলেন, “যে সমস্ত রাজ্য ভাল পারফর্ম করছে,  তাদের সাথে কেন্দ্রের আলোচনা করা উচিৎ বাজেট ঘোষণার আগে।”

Advertisement

Related Articles

Back to top button