নিউজপলিটিক্সরাজ্য

মুখে বলে হরি হরি আর মানুষকে খুন করি, শুভেন্দু কে কটাক্ষ মমতার

মীরজাফরের প্রসঙ্গ টেনে এনে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ( Mamata Banerjee) এদিন দলত্যাগীদের উদ্দেশ্যে কড়া বার্তা দিলেন।

সিরাজউদ্দৌলা দেশকে ভালবাসতেন কিন্তু মীরজাফর কথা শোনেননি গদ্দারি করেছিলেন দেশের সাথে। বহরমপুর এর জনসভা থেকে মীরজাফরের প্রসঙ্গ টেনে এনে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ( Mamata Banerjee) এদিন দলত্যাগীদের উদ্দেশ্যে কড়া বার্তা দিলেন। এদিন কার সভা থেকে যেন বুঝিয়ে দিতে চাইলেন ইতিহাসের পুনরাবর্তন এ তিনি সেই সিরাজ। আর তার জন্য অপেক্ষমান জয়।নিজেকে বাহিনীর সঙ্গে তুলনা করে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় রাজিব (Rajib Banerjee) এবং শুভেন্দু (Suvendu Adhikary) দের মতো নেতাদের কড়া বার্তা দিলেন।

এদিন প্রথম থেকেই তার গলায় ছিল বিদ্রূপের সুর। তিনি বলেছেন দুষ্টু গরুর থেকে শূন্য গোয়াল ভালো। যারা যারা বিজেপি করবে মনে করেছেন তারা চলে যান তাদের নিয়ে আমার কিছু যায় আসে না। আমি দলকে টাকায় বেচে দিই না। দুর্নীতি পরায়ন লোকেরা দুর্নীতির কাছে মাথা বেচে দেয়। দুর্নীতি করে মনে হয়েছে গরু কয়লা কেসে চুরি করে ধরা পড়ি। তাই কালো হয়ে বিজেপির ওয়াশিং মেশিনে সাদা হতে যাচ্ছে সবাই।

এছাড়াও শুভেন্দু অধিকারী আজকাল স্লোগান তুলেছেন, “কৃষ্ণ কৃষ্ণ হরে হরে বিজেপি ঘরে ঘরে।” এদিন সেই স্গানের পাল্টা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের শ্লোগান দিলেন, “হরে কৃষ্ণ হরে হরে, তৃণমূল শান্তি ঘরে ঘরে।” এছাড়াও মমতা শুভেন্দু অধিকারী কে কটাক্ষ করে বললেন মুখে বলে হরি হরি আর সাধারণ মানুষকে খুন করি।

এছাড়াও নিরাপত্তা এবং সুরক্ষা যদিও প্রশ্নগুলির উপরে দিন জোর দিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি বললেন জেলায় মহিলারা অত্যন্ত সুরক্ষিত। বর্তমানে পশ্চিমবঙ্গের মা-বোনেরা সমস্ত কাজে থাকেন। এই স্বাধীনতা বাংলা ছাড়া অন্য কোথাও পাওয়া যায় না। তিনি বিজেপির রাজ্যের প্রসঙ্গ টেনে বলেন সেখানে বাংলার মত সম্মান মহিলাদের দেওয়া হয় না।

Related Articles

Back to top button