Today Trending Newsকলকাতানিউজ

কেউ সরকারি সম্পত্তি নষ্ট করলে, তাকে গুলি করে মারা উচিত, মন্তব্য দিলীপ ঘোষের

Advertisement
×

নাগরিকত্ব আইন এবং এনআরসি নিয়ে এবার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে বিরোধিতা করতে গিয়ে ফের বেলাগাম হলেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। শনিবার বাঁকুড়ায় একটি সভা থেকে তিনি মুখ্যমন্ত্রীর উদ্দেশ্যে বলেন, ‘মুসলিমরাই তো ওনার ভোটবাক্স ভরান, তাই ওদের কথা ভেবেই উনি বিরোধিতা করছেন।’ এরপরই দিলীপ বাবু মন্তব্য করেন, সরকারি সম্পত্তি নষ্ট করলে গুলি করে মারা উচিত।

Advertisement
Advertisement

শনিবার বাঁকুড়ায় একটি মিছিল অংশগ্রহণ করেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। সেখানেই মিছিলের পর তিনি সংবাদমাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে এই কথা বলেন। বিজেপি সাংসদ বলেন, ‘মানুষের কথা না ভেবে শুধুমাত্র ভোটবাক্সের কথা ভেবেই উনি এনআরসি, নাগরিকত্ব বিলের বিরোধিতা করছেন।’ দিলীপ ঘোষ ও বলেন যে, ‘মুসলিমরা না থাকলে ওনাকে ভোট দেওয়ার লোক নেই।’

Advertisement

আরও পড়ুন : ঝাড়খণ্ডে ম্যাজিক ফিগার ক্রস করতে পারবে না বিজেপি, বুথ ফেরত সমীক্ষায় ঈঙ্গিত

Advertisement
Advertisement

রাজ্যে বিক্ষোভের সময় পুলিশের ভূমিকা নিয়েও প্রশ্ন তোলেন তিনি। পুলিশকে কটাক্ষ করে বিজেপি সাংসদ বলেন, ‘ভাঙচুরের সময় পুলিশ কি মুখ্যমন্ত্রীর আঁচলের তলায় লুকিয়ে ছিল?’ মিছিলের পর বিজেপির সভাস্থল থেকে তিনি বলেন, ‘অসমের মতো বাংলাতেও গুলি চলবে। কেউ সরকারি সম্পত্তি নষ্ট করলে তাকে মেরে ফেলা উচিত।’

২০২১ এর রাজ্য বিধানসভা নির্বাচন নিয়েও কথা বলেন এদিন দিলীপ ঘোষ। বিজেপি রাজ্য সভাপতি বলেন, ২০২১ এ রাজ্যে বিজেপিই ক্ষমতায় আসবে। এখন যেমন মুখ্যমন্ত্রী রাস্তায় রাস্তায় ঘুরে বেড়াচ্ছেন, তখন উনি প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী ঘুরে বেড়াবেন। দিলীপ ঘোষের এই মন্তব্যের তীব্র সমালোচনা করেছে তৃণমূল।

Advertisement

Related Articles

Back to top button