বলিউডবিনোদনভিডিও

‘জিঙ্গাট’ গানে নেচে সত্তর বছরের ঠাকুমা স্টেজ মাতিয়ে শোরগোল তুললেন নেট দুনিয়ায়, ভাইরাল ভিডিও

Advertisement

মেয়েরা বরাবর শুনে এসেছে,তারা নাকি কুড়িতেই বুড়ি। প্রতিটি পরিবারে অন্তত একজন করে মহিলা আছেন যিনি বড় হয়ে বা বিয়ের পরে পরিবারের নির্দেশে তাঁর প্রিয় নাচ বা গান ছেড়ে দিতে বাধ্য হয়েছেন। কিন্তু জোর করে কখনো প্রতিভাকে দমিয়ে রাখা যায় না। সম্প্রতি একজন সত্তরোর্ধ্বা মহিলা সবার সামনে স্টেজে নেচে তার প্রমাণ দিলেন। ভদ্রমহিলার পরনে চকমকে নাচের পোশাকের বদলে ছিল সাধারণ খয়েরি পাড়ের সাদা শাড়ি। নায়িকাদের মতো স্লিম নন তিনি,বয়সের ভারে ঈষৎ স্থুল। সেই তিনিই স্টেজ মাতালেন। মারাঠি ফিল্ম ‘সইরত’-এর হিট গান ‘জিঙ্গাট’-এর সাথে নাচলেন ভদ্রমহিলা। তাঁর নাচ অন্য অনেক নামী-দামী অভিনেত্রীর থেকে অনেক বেশি এনার্জিসম্পন্ন ছিল। নেটিজেনরা সত্তর বছর বয়সেও তাঁর এই এনার্জি দেখে অবাক। সবাই সাধারণত দেখে এসেছেন ,বাড়ির ঠাকুমা-দিদিমারা এই বয়সে বাতের ব্যথায় সিঁড়ি দিয়ে উঠতে পারেন না। সেই বয়সে স্টেজে উঠে নেচে চারিদিকে শোরগোল তুললেন এই মহিলা ।

নেটিজেনরা এই ভিডিওটির নাম দিয়েছেন , ‘গ্রানি’স ডান্স ভিডিও’। এর অর্থ হল ‘ঠাকুমার নাচের ভিডিও’। ‘ কলাকার অ্যাপ’ নামে একটি ইন্সটাগ্রাম প্রোফাইল থেকে এই ভিডিওটি আপলোড করা হয়েছে।

এর আগেও দেখা গেছে,বয়স্ক মহিলারা বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করেছেন। গত বছর কালার্স চ্যানেলের একটি ডান্স কম্পিটিশনে একজন ষাট বছর বয়সী মহিলা অংশগ্রহণ করেছিলেন। কিন্তু বয়সজনিত কারণে তাঁর স্বাস্থ্যের কথা মাথায় রেখেই তাঁর সিলেকশন হয়নি। এছাড়া ভারতের বিখ্যাত ‘রিভলবার দাদি’জুটির কথা প্রায় সবাই জানেন। আশি বছর বয়সী এই দুই বৃদ্ধা হরিয়ানায় থাকেন। তাঁরা জাতীয় স্তরে রাইফেল শুটিং কম্পিটিশনে স্বর্ণপদক জিতে নিয়ে এসেছেন। এমনকি বলিউডে তাঁদের নিয়ে ‘ষান্ড কি আঁখ’ নামে একটি ফিল্ম বানানো হয়েছে। এই ফিল্মে ‘রিভলবার দাদি’ জুটি -র ভূমিকায় অভিনয় করেছেন অভিনেত্রী তাপসী পন্নু ও ভূমি পেডনেকর। এই ফিল্মটি সুপারহিট হয়েছে এবং বক্স অফিসে বেশ ভালো ব্যবসা করেছে। সমাজে মেয়েরা এভাবেই বারবার প্রমাণ করে চলেছেন, ‘আমি নারী, আমিই পারি’।

Tags

Related Articles

Back to top button