নিউজপলিটিক্সরাজ্য

মুকুল রায়ের বিরুদ্ধে আদালতে গেল বিজেপি, জোড়া মামলার চাপে ব্যাকফুটে মুকুল

বিজেপি পরিষদীয় দলের তরফ থেকে জানানো হয়েছে ইতিমধ্যে ড্রাফট তৈরির কাজ শেষ এবং আজকেই হয়তো এই মামলার প্রথম শুনানি

এবারে মুকুল রায়ের বিরুদ্ধে দলত্যাগ বিরোধী আইন এবং তাকে পাবলিক একাউন্ট কমিটির চেয়ারম্যান পদে আসিন করা নিয়ে আদালতে মামলা করল ভারতীয় জনতা পার্টি। এই দুটি পদ খারিজের ইস্যু নিয়ে মামলা করা হয়েছে বলে জানা যাচ্ছে বিজেপি সূত্রে। বিজেপির পরিষদীয় দল ইতিমধ্যেই ড্রাফট তৈরি করার কাজ শেষ করেছে এবং সম্ভবত আজকেই এই মামলার প্রথম শুনানি হবে। বিধানসভার রুল বুক ৩০২ ধারা অনুযায়ী মামলা করা হয়েছে বলে খবর।

বিজেপির দাবি, ওই দাবি লংঘন করেছে শাসক দল। আনুপাতিক হারে পাবলিক একাউন্ট কমিটির সদস্য নির্বাচিত হয়। নিয়ম অনুযায়ী ১৪:৬ অনুপাতে কমিটির সদস্য নির্বাচন করা হয়ে থাকে। কিন্তু এক্ষেত্রে করা হয়েছে ১৩:৭। শাসকদলের তরফ থেকে এই নিয়ম লঙ্ঘন করা হয়েছে বলে দাবি করেছে বিজেপির পরিষদীয় দল।

মুকুল রায়ের বিরুদ্ধে যে ড্রাফট তৈরি করা হয়েছে সেখানে মুকুল রায়ের তৃণমূলে যোগ দেওয়ার মিডিয়ার ফুটেজ রয়েছে। এছাড়া রয়েছে খবরের কাগজের কাটিং, মুকুল রায়ের টুইটারে স্ক্রিনশট এবং সিডি এবং ভিডিও ফুটেজ। আইনি পথে কিভাবে মুকুল রায় কে পরাস্ত করা যায় সেই নিয়ে রোডম্যাপ নির্ধারণ করতে বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে কথা বলেছে বিজেপি পরিষদীয় দল। সেই বৈঠকের পরে প্রথমে মুকুলকে পাবলিক একাউন্ট কমিটির চেয়ারম্যান পদ থেকে অপসারণের দাবি নিয়ে একটি মামলা করা হয়েছিল। তারপরে সেই মামলার সঙ্গে জুড়ে দেওয়া হয় দলত্যাগ বিরোধী আইন নিয়ে মুকুল রায়ের বিরুদ্ধে করা মামলা। দুইয়ের চাপে পড়ে বর্তমানে মুকুল রায় বেশ কিছুটা ব্যাকফুটে বলা যেতে পারে।

অন্যদিকে, মুকুল রায়ের বিধায়ক পদ খারিজের দাবিতে ইতিমধ্যেই স্পিকার বিমান বন্দ্যোপাধ্যায় এর ঘরে মামলা চলছে বলে খবর। কিন্তু বিজেপি পরিষদকে দলের তরফ থেকে জানানো হয়েছে এই মামলায় তারা সন্তুষ্ট নয়। এমনকি শুভেন্দু অধিকারী নিজেও জানিয়েছেন এই মামলায় পক্ষপাতিত্ব করছেন বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়। এই কারণেই এবারে সরাসরি আদালতের দ্বারস্থ হলো বিজেপি।

Related Articles

Back to top button