কলকাতাদেশনিউজরাজ্য

জরুরীকালীন ভিত্তিতে ছাড়পত্র পেল কোভিশিল্ড, গোটা দেশের পাশাপাশি আজ থেকে এ রাজ্যেও শুরু ড্রাইরান প্রক্রিয়া

Advertisement

কলকাতা: নতুন বছরকে (New Year) স্বাগত জানানোর আগে করোনার (Coronavirus) নতুন স্ট্রেন কার্যত আতঙ্কে ফেলে দিয়েছে গোটা বিশ্বকে। অন্যদিকে, ভারতে করোনা ভ্যাকসিনের অনুমোদন কিছুটা হলেও স্বস্তি দিয়েছে দেশবাসীকে। আজ, শনিবার (Saturday) নতুন বছরের দ্বিতীয় দিনে দেশের অন্যান্য রাজ্যের পাশাপাশি এ রাজ্যেও শুরু হতে চলেছে করোনা ভ্যাকসিনের ড্রাইরান বা মহড়া। গতকাল, শুক্রবার (Friday) চূড়ান্ত বৈঠকের পর কোভিশিল্ড ভ্যাকসিনকে অনুমোদন দিয়েছে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রক (Central Health Ministry)। তাই সব মিলিয়ে করোনা পরিস্থিতিকে মোকাবিলা করার জন্য ভারত (India) প্রস্তুত, এমনটা বলাই যায়।

জানা গিয়েছে, এ রাজ্যের দত্তাবাদ, মধ্যমগ্রাম ও আমডাঙার স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ২৫ জন করে স্বাস্থ্যকর্মীরা এই মহড়ায় অংশ নেবেন। এর জন্য যাবতীয় প্রস্তুতি ইতিমধ্যেই সেরে ফেলা হয়েছে। এই ড্রাইরান প্রক্রিয়া আসলে হল, ভ্যাকসিন এলে কীভাবে তা প্রয়োগ করা হবে, প্রয়োগের পর রোগীর পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া সম্পর্কে কী ধারণা স্বাস্থ্যকর্মীদের থাকতে হবে এবং প্রয়োজনে কী কী পদক্ষেপ নিতে হবে এই সমস্ত কিছু প্রশিক্ষণ দেওয়া।

জানা গিয়েছে, এই প্রক্রিয়া চালানোর জন্য একজন করে স্বাস্থ্যকর্মীকে ওয়েটিং রুম থেকে ভ্যাক্সিনেশন রুমে নিয়ে যাওয়া হবে। সেখানে তাকে ভ্যাকসিন প্রদানের পর অবজারভেশনে রাখা হবে। আর এই পুরো প্রক্রিয়াটি দেখাশোনা করবেন স্বাস্থ্য আধিকারিকরা। এদিকে জরুরি অবস্থায় প্রয়োগের জন্য ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে কোভিশিল্ড ভ্যাকসিনকে। সিরাম ইনস্টিটিউটের পক্ষ থেকে ইতিমধ্যেই দাবি করা হয়েছে যে, এই ভ্যাকসিনের পাঁচ কোটি ডোজ তাদের কাছে তৈরি। সুতরাং, সব মিলিয়ে করোনা ভাইরাসকে মোকাবিলা করার জন্য প্রস্তুত ভারত, এমনটাই দাবি করেছে কেন্দ্রীয় সরকার। পরবর্তীকালে এই ড্রাইরান এবং জরুরী ভিত্তিতে ভ্যাকসিন প্রয়োগ করোনার রূপ কীভাবে বদলে দেয়, সেটাই দেখার।

Tags

Related Articles

Back to top button