টলিউডবিনোদন

আইনি বিচ্ছেদ হয়নি, প্রাক্তন স্ত্রীর ‘নতুন সম্পর্ক’ নিয়ে মুখ খুললেন স্বামী সৌরভ



২০১১ সালে ‘সবিনয়ে নিবেদন’ এই মেগা ধারাবাহিক দিয়ে মধুমিতার প্রথম অভিনয়। আর প্রথম  কোস্টারের প্রেমে পড়েন অভিনেত্রী। এই ধারাবাহিকেই প্রথমবার মধুমিতা আর সৌরভকে একসঙ্গে দেখতে পান দর্শক। প্রথম কাজের পর থেকেই দু’জনের মধ্যে ভাল বন্ধুত্ব তৈরি হয়। আর বছর চারেক সেই বন্ধুত্বের পর তাঁরা আবদ্ধ হন বিবাহবন্ধনে। ৮ বছরের এই সম্পর্ক নানান পারস্পরিক বোঝাপড়ার মধ্যে দিয়ে নিজেদের সম্পর্কে ইতি টানেন এই জুটি। বিচ্ছেদের পর মধুমিতা টেলিভিশনকে বিদায় জানিয়ে সিনেমায় অভিনয় করা শুরু করেন। অভিনেত্রী  টেলিভিশনের মতো সিনেমাতেও একইভাবে জনপ্রিয়তা পেয়েছেন। অন্যদিকে সৌরভ ও নিজের পরিচালনা, ধারাবাহিক আর ওয়েব সিরিজ নিয়ে বেশ আছেন।

২০১৯ সালে টেলিটাউনের এই মিষ্টি জুটির বিচ্ছেদের খবর প্রথম আসে। প্রথম প্রথম এই খবর কেউই বিশ্বাস করতে পারেননি। এরপর দুজনেই নিজেদের বিচ্ছেদের কথা মেনে নিয়েছেন। তবে দুজনেই স্বীকার করেন দাম্পত্য জীবনে যতই তিক্ততা থাকুক বিচ্ছেদের পর দুজন ভালো বন্ধু হিসেবে পাশাপাশি থাকবেন। দুজন এখনো সম্পূর্ণ আলাদা থাকলেও আজও খাতায়-কলমে স্বামী-স্ত্রী সৌরভ-মধুমিতা স্বামী স্ত্রী। কারণ মহামারির জেরে এখনো এদের ডিভোর্সের প্রক্রিয়া শিথিল হয়ে পড়েছে।

তবে এর মাঝেই টলিপাড়াতে নতুন গুজব ছড়িয়েছে মৈনাক ভৌমিকের চিনি ছবিতে অভিনয় করার সময় নতুন করে প্রেমে পড়েছেন অভিনেত্রী। এই ছবিতে মধুমিতার কোস্টার ছিলেন টলিপাড়ার জনপ্রিয় অভিনেতা সৌরভ দাস। সৌরভ আর মধুমিতার প্রেমের জন্য নাকি অনিন্দিতার সঙ্গে ফাটল দেখা দিয়েছে। এই বার এই প্রসঙ্গ নিয়ে মধুমিতার প্রাক্তন নিজের বক্তব্য পেশ করলেন এক সংবাদমাধ্যমে।

নিজের প্রাক্তন স্ত্রী মধুমিতা ও সৌরভ দাসের সম্পর্কের গুঞ্জন তাঁর কাছে শুধুই গুজব। তবে তিনি এও বলেন মধুমিতার সঙ্গে যদি তাঁর আর যোগাযোগ থাকত বা আবারো সম্পর্ক জোড়া লাগার কোনোরকম সম্ভাবনা থাকত তবে তিনি বিষয়টা নিয়ে অবশ্যই মাথা ঘামাতেন। কিন্তু তাঁদের মধ‍্যে এখন আর কোনো সম্পর্কই নেই তাই তিনি আর কিছু বলতে চাননা। সৌরভ আরো বলেন, তিনি কাজে এতটাই ব‍্যস্ত যে মধুমিতা -সৌরভের নতুন সম্পর্ক নিয়ে ভাবার সময় নেই তাঁর। বর্তমানে সৌরভ পরিচালক অঞ্জন দত্তের ওয়েব সিরিজ ‘মার্ডার ইন দ‍্য হিলস’এ প্রচার নিয়ে বেশ ব্যস্ত আছে। এছাড়াও নিজে আবারো পরিচালনার কাজে তিনি নামছেন।

এই প্রসঙ্গে মধুমিতা নিজের বক্তব্য রেখেছেন। চিনি ওরফে মধুমিতা জানান, একা মহিলা বলেই যে যার সঙ্গে খুশি তাঁর নাম জড়িয়ে দেওয়া হচ্ছে। একদিকে তিনি বিবাহবিচ্ছিন্না অন্যদিকে তাঁর প্রাক্তন স্বামীর নামও সৌরভ। এই দুটো বিষয় মিলিয়েই এই ধরনের গুজব ছড়াচ্ছেন নেটিজেনরা। সেই সঙ্গে চিনি ছবিতে সৌরভ ও তাঁর অনস্ক্রিন রসায়নকেও গুজব ছড়ানোর জন‍্য দায়ী করেছেন।

অপরদিকে সৌরভ দাসের প্রেমিকা অনিন্দিতাও স্পষ্ট ভাবে জানান, তিনিও এই ধরনের ভিত্তিহীন গুজবে কান দিতে রাজি নন অনেকদিন ধরেই লিভ ইন করছেন তিনি সৌরভের সঙ্গে। গত বছর পুজোর আগেই নতুন বাড়িতেও শিফট করেছেন দুজন। সেখানেই একসাথে থাকার প্রতিশ্রুতি নিয়েছেন। শান্তির নীড় সাজিয়েছেন দুজনে। এই নতুন বাড়ির নাম দিয়েছেন ‘প্রথম অধ‍্যায়’।

Related Articles

Back to top button