কলকাতানিউজ

নতুন রূপে শিয়ালদহ স্টেশন, সৌন্দর্যময় স্টেশনে রয়েছে পাঁচতারা হোটেল, রেস্তোরাঁ, শপিং মলও

শিয়ালদা: নামটা আসলে শিয়ালদহ। কিন্তু চলতি কথায় দিনে দিনে তার সংক্ষিপ্তকরণ হয়ে দাঁড়িয়েছে শিয়ালদা। এই নামে কলকাতার অন্যতম জংশন স্টেশনকে সকলে চেনে। দীর্ঘদিন করোনা ভাইরাসের কারণে লকডাউন ছিল গোটা দেশ জুড়ে। ‘আনলক ফোর’ প্রক্রিয়া শুরু হলেও এখনও পর্যন্ত রেল পরিষেবা স্বাভাবিক ছন্দে ফেরেনি। কবে লোকাল ট্রেন চালু হবে, তা নিয়ে বিভিন্ন মহলে প্রশ্ন দেখা গেলেও এর সদুত্তর কিন্তু এখনও পাওয়া যায়নি। আর এই দীর্ঘ লম্বা ছুটির মধ্যে নিজেকে কার্যত নতুনভাবে সাজিয়ে নিল শিয়ালদহ বা শিয়ালদা স্টেশন।

ট্রেনে চেপে এই স্টেশনে নামলে এবার থেকে আপনার মনে হবে যে চেনা শিয়ালদা নয়, অন্য কোনও নতুন এক সৌন্দর্যের দেশে আপনি পা রেখেছেন। এই নতুন সৌন্দর্যময় শিয়ালদা স্টেশনে রয়েছে পাঁচতারা হোটেল, রেস্তোরাঁ, এমনকি শপিং মলও। চাইলে আপনি আপনার প্রিয়জনের সঙ্গে ক্যান্ডেল লাইট ডিনারটা এখানেই সেরে ফেলতে পারবেন।

প্রতিদিন ৯১৯টি ট্রেন ও প্রায় ১২ লক্ষ যাত্রীর চাপে শিকেয় উঠেছিল ‘স্বচ্ছ ভারত’ মিশনে শিয়ালদহ স্টেশনের আমূল বদলের কর্মসূচি। লকডাউন সেই সুযোগ করে দিয়েছে। সুসজ্জিত ফুলের টবে ভরিয়ে দেওয়া হয়েছে গোটা স্টেশন। চোখ ধাঁধিয়ে দেবে দেওয়ালে আঁকা নানা শিল্পকর্ম ও মুর‌্যাল। শপিংমল তৈরি হচ্ছে দক্ষিণ শাখার প্ল্যাটফর্মের কাছে। আর পাশেই একটি নামী সংস্থার রেস্তোরাঁ।

জানা গিয়েছে, শিয়ালদহ স্টেশনে একই জায়গায় সব টিকিট কাউন্টার নিয়ে আসার চেষ্টা চলছে। প্ল্যাটফর্ম নম্বরও পাল্টে গিয়েছে। দক্ষিণ শাখায় প্ল্যাটফর্মের নম্বর ছিল ১০এ থেকে ১৪এ। সেটি হচ্ছে ১৫ থেকে ২১। উত্তর শাখায় ১এ থেকে ৯ডি প্ল্যাটফর্ম এবার হচ্ছে ১ থেকে ১৪। সুতরাং, সব মিলিয়ে নতুন রূপে সুসজ্জিত আপনার-আমার শিয়ালদা স্টেশন কার্যত আমাদেরকে স্বাগত জানানোর জন্য কিন্তু প্রস্তুত হয়ে রয়েছে, তা বলাই যায়। এখন শুধু অপেক্ষা লোকাল ট্রেন চালু হওয়ার। অপেক্ষা এই নতুন শিয়ালদা স্টেশনে আমজনতার পা রাখার। পুজোর আগে সেই অপেক্ষার অবসান কি হবে? যদিও এর উত্তর দেবে সময়।

Tags

Related Articles

Back to top button