বলিউডবিনোদন

ভক্তদের ওপর চটলেন সলমন, দিলেন আইনি পদক্ষেপের হুমকি

×
Advertisement

ইদ আর সলমন খান দুজনের সম্পর্ক লিঙ্ক আপ করা। ইদে প্রতিবছর নিয়ম করে ভাইজানের নতুন সিনেমা মুক্তি পায়না তা কি হয়। করোনা আবহে সিনেমা হলে ব্লকবাস্টার সলমনের সিনেমা মুক্তি না পেলেও বাড়ি বসে কম খরচে সপরিবারের সিনেমা দেখার আনন্দ দিয়েছিলেন ভাইজান। এই অতিমারিতে বাড়ি বসেই সকল সিনে প্রেমীরা মন ভালো করতে চেয়েছিলেন। ভাইজানের ফ্যানেদের কাছে নতুন ছবির মুক্তি নিয়ে মনে ছিল বেশ আনন্দ। প্রভুদেবা পরিচালিত সলমান ‘রাধে: ইওর মোস্ট ওয়ান্টেড ভাই’ মোটেও আনন্দ দেয়নি।

Advertisement

এই ছবিতে অভিনেত্রীর চরিত্রে দেখা গিয়েছে দিশা পাটানিকে। খলনায়কের চরিত্রে রয়েছেন রণদীপ হুডা। অন্য দিকে, একটি গানের দৃশ্যে দেখা যাবে জ্যাকলিন ফার্নান্ডেজকে । এবং একটি বিশেষ চরিত্রে অভিনয় করেছেন জ্যাকি শ্রফ। তবু এই ছবি কারোরই এই পছন্দ হয়নি। সিনেমা পছন্দ না হওয়াতে কেউ আর টাকা খরচ করে দেখতে রাজি হচ্ছেন না। অনেকেই লকডাউনে বাড়িতে বসে তাই ইচ্ছে হলে পাইরেটেড সাইট থেকে রাধে ডাউনলোড করেই দেখে নিচ্ছেন। আর এতেই মারাত্মকভাবে রেগে গিয়েছেম সাল্লু ভাই। সোশ্যাল মিডিয়ায় রীতিমতো সকলকে হুমকি দিলেন।

শনিবার সোশ্যাল মিডিয়ায় এই প্রসঙ্গে একটি পোস্ট শেয়ার করেন সলমন। রাধে ছবিটিকে পাইরেসির শিকার করা মোটেই আইনসম্মত নয় বলে তা তিনি স্পষ্ট করে লেখেন। এই ঘটনার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও তিনি জানান। সলমন লেখেন, “আমাদের ছবি রাধে যথেষ্ট ঠিকঠাক দামে ২৫০ টাকায় আপনাদের দেখানো হচ্ছে যা সকলের সাধ্যের মধ্যে। তা সত্ত্বেও কিছু পাইরেটেড সাইট ছবিটি বেআইনিভাবে স্ট্রিম করছে। সাইবার সেল এই সমস্ত বেআইনি সাইট গুলোর বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ নিয়েছেন। কেউ দয়া করে এসব সাইট থেকে ‘রাধে’ দেখবেন না। তাহলে সকলের বিরুদ্ধেও কড়া পদক্ষেপ নেবে সাইবার সেল।

Advertisement

এই হুমকি দেখে নেটিজেনরা বেশ চটে গেলেন। ট্রোলিংয়ের শিকার হতে হয়েছে অভিনেতাকে। এক টুইটার ব্যবহারকারী কমেন্ট করে লিখেছেন, ‘সরি ভাই, সেই ব্যক্তি সলমানের পাইরেটেড ওয়েবসাইট থেকে দেখেছি। তিনি ডাউনলোড করে দেখেননি। আর এই অপরাধ তার ড্রাইভার করেছে। সলমন খানই বুঝবে এই কষ্ট। একজন ইউজার লিখলেন, নেটিজেনের মন্তব্য, ওই দেখো, কে অপরাধ নিয়ে কথা বলছে। অনেক নেটিজেন সলমান খানকে নিয়ে ট্রোলড করতে শুরু করেন।

Related Articles

Back to top button