বলিউডবিনোদন

‘পাড়ার কাকিমা’ বলে ডাকত! সন্তান জন্মের পর নানান কটুক্তির শুনেতে হয়েছে অভিনেত্রীকে

×
Advertisement

রুপোলি গঙ্গোপাধ্যায়। এই বঙ্গতনয়া হোটেল ম্যানেজমেন্ট নিয়ে পড়াশোনার পরে বলি ইন্ড্রাস্টিতে পা রাখেন। তাঁর উল্লেখযোগ্য কাজগুলির মধ্যে রয়েছে ‘সঞ্জীবনী’ ধারাবাহিকে ডা. সিমরন চোপড়া, ‘সারাভাই ভারসাস সারাভাই’ ধারাবাহিকে মনীষা সারাভাই। একসময় দাপিয়ে ছোটপর্দায় অভিনয় করেছেন রুপালি। নিজের অনবদ্য অভিনয় দিয়ে একের পর এক হিট ধারাবাহিক উপহার দিয়েছেন।সারাভাই ভার্সেস সারাভাই’এর দ্বিতীয় সিজনেরও অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকায় রূপালীকে দেখতে পেয়েছিল দর্শক। বর্তমানে জনপ্রিয় ধারাবাহিক ‘অনুপমা’-র মুখ্যচরিত্রে রয়েছেন তিনি। আর এটিতে নিজের অভিনয় দিয়ে সকলের প্রিয় বৌমা হয়ে উঠেছেন।

Advertisement

নিজের কেরিয়ারে যখন রুপোলী এগিয়ে গিয়েছেন তার মাঝেই ২০১৩ সালে ব্যবসায়ী অশ্বীন বর্মাকে বিয়ে করেছিলেন রূপালি। বিয়ের দুবছর পর২০১৫ সালে জন্ম হয় তাঁদের প্রথম সন্তান রুদ্রাংশ। অভিনয়ের সাথে সাথে নিজের ছেলের যত্ন নিতে ভোলেননি তিনি। করোনার জন্য মহারাষ্ট্রে এখন শ্যুটিং বন্ধ থাকায় পুরো টিমের সঙ্গে গুজরাটে আছেন অভিনেত্রী। আর এর মাঝেই গত সপ্তাহে রূপালির‘অনুপমা’র সেটে হাজির হয়েছিলেন অশ্বীন ও রুদ্রাংশ।আর তাঁদের দেখে খুশিতে আত্মহারা অভিনেত্রী।

স্বামী আর ছেলের এই সারপ্রাইজ ভিজিটের মুহূর্ত লেন্সবন্দী করে নিজের সোশ্যাল মিডিয়ার পেজে শেয়ার করে রূপালি লিখেছিলেন, ‘বাড়ি হল সেটা যেখানে হৃদয় আছে… আমি বাড়ি যেহেতু যেতে পারছিনা তাই আমার হৃদয়ের দুই টুকরো এসেছে আমার সঙ্গে দেখা করতে। আমার ছোট্ট আর তাঁর বাবা।’ এরপর নেটিজেনরা ভালোবাসা জানিয়েছেন।

Advertisement

সম্প্রতি অভিনেত্রী এক সাক্ষাৎকারে মা হওয়ার পর নিজের বডি শেমিং নিয়ে কথা বলেন। রাস্তায় বের হলে তাঁর ওজন নিয়ে নানান কটুক্তি শুনতে হত। এমনকি যারা অভিনেত্রীকে চিনতোনা তারাও মন্তব্য করতেন। রুদ্রাংশ জন্মের পর অভিনেত্রীর স্তন্যপান করানোতে কিছু সমস্যা তৈরী হয়েছিল। তাই ছেলেকে স্তন্যপান করানোর জন্য তিনি অনেক খাবার খেয়ে নিজের ওজন বৃদ্ধি করেন। ছেলের জন্মের সময় অভিনেত্রীর ওজন ছিল ৫৮ তা বেড়ে কিছুদিনে হয় ৮৬ কেজি। তাতে অভিনেত্রীর কোনো আক্ষেপ ছিলনা। গবে রুপোলি যখন নিজের ছেলেকে নিয়ে বাইরে বেরোতেন তখন আশেপাশের মহিলারা বলে তাঁর ওজন নিয়ে কথা বলতেন।

এখনো অনেক মাকে এই ওজন বৃদ্ধি নিয়ে নানান কটুক্তির সম্মুখীন হতে হয়। বডি শেমিং নিয়ে করে নানান ইয়ার্কি। অভিনেত্রী সকলের উদ্দেশ্যে বলেন, এখনও এই সমাজে একজন মা-কে তাঁর শরীর নিয়ে, ওজন বেড়ে যাওয়া নিয়ে কেন প্রশ্ন তোলা হয়। এই অধিকার কে দিয়েছে। তারা কি আদৈও জানেন এক সন্তানের জন্ম দিয়ে কতটা কঠিন পরিস্থিতির সম্মুখীন হতে হয়। তা মনে হয় তাদের জানা নেই।

Related Articles

Back to top button