দেশনিউজ

দাম বাড়ছে নিত্তপণ্য এবং খাদ্যদ্রব্যের, মাথায় হাত মধ্যবিত্তের

ভারতঃ করোনা সংক্রমণের মধ্যেই দেশের অর্থনীতিকে সচল রাখতে আনলক প্রক্রিয়া চালু করা হয়েছে কিন্তু তাতেও রোখা যায়নি খাদ্য দ্রব্যের দাম। কেন্দ্রের দেওয়া তথ্য অনুয়ায়ী গত মাসে খাদ্য দ্রব্যের দাম বেড়েছিল ১০.৬৮ শতাংশ। লক ডাউনে চাকরি হারিয়ে বহু মানুষের এখন অবস্থা খারাপ। তার মাঝেই লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে জিনিসের দাম। খাবারের দাম বাড়ার ফলে মাথায় হাত পড়েছে মধ্যবিত্তের। কিছু দিনা আগেই বেড়েছিলো ডিমের দাম। তারপরেই বাড়ে পেঁয়াজের দাম।

অন্য একটি পরিসংখ্যানে দেখা যাচ্ছে, শিল্প সংস্থার উত্পাদন কমেছে ৮ শতাংশ। অন্য রাজ্য থেকে আসার ফলে বাড়ছে পেঁয়াজের দাম। কোনোভাবে মুজুত রেখে দাম বাড়ানো হচ্ছে না। কিন্তু দক্ষিন ভারতের বন্যার কারণে নষ্ট হয়েছে প্রচুর পেঁয়াজ। এর ফলে ক্ষতি হতে চলেছে পেঁয়াজের বাজার। অন্যদিকে পেঁয়াজ আনতে মাথায় হাত আম জনতার।

পুজো পর্যন্ত বাড়বে পেঁয়াজের দাম আমাদের রাজ্যে মাত্র তিন মাস পেঁয়াজ চাষ হয় যা দিয়ে রাজ্যের মানুষের হাত ভরানো একদমই অসম্ভব। কিছু দিইন আগে এবছর অতিরিক্ত বৃষ্টির কারণে পেঁয়াজ চাষের ক্ষতি হওয়ায় ভারত সরকার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলো বাংলাদেশে রপ্তানি করবে না পেঁয়াজ।

অন্য দিনে গত সেপ্টেম্বরে শাকসবজির দাম বেড়েছে ২০.৭৩ শতাংশ। আগের মাসে তা বেড়েছিল ১১.৪১ শতাংশ। আর আগের তুলনায় অনেকটাই বেড়ে গেছে আলুর দাম। আমাদের প্রত্যেকের পাতেই আলু ডিম এবং পেঁয়াজ পড়েই। কিন্তু এসবের মধ্যে প্রতিদিন খাদ্য দ্রব্যের দাম বাড়ায় মাথায় হাত পড়ছে আম জনগনের।

Tags

Related Articles

Back to top button