টলিউডবিনোদন

Deboshree Roy: ‘একজন কেউ ইন্ডাস্ট্রি হতে পারে না’, স্পষ্ট জবাব দেবশ্রী রায়ের

×
Advertisement

আশির দশক থেকে শুরু করে এখনো পর্যন্ত অভিনেত্রী হিসেবে দর্শকদের মাঝে নিজের জায়গা কায়েম রেখেছেন টলিউডের চুমকি অর্থাৎ দেবশ্রী রায়। আশির দশকে প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়ের সাথে জুটি বেঁধে একাধিক ছবিতে অভিনয় করে দর্শকদের মন জিতে নিয়েছিলেন অভিনেত্রী। সেইসময় তাদের অনস্ক্রিন ও অফস্ক্রিন দুই জায়গাতেই একসাথে দেখতে পছন্দ করতেন দর্শকরা। ছোটবেলার বন্ধু ছিলেন তারা। পরবর্তীকালে বন্ধুত্ব থেকে প্রেম তারপর বিয়ের পিঁড়িতে বসেছিলেন এই দুই তারকা। ১৯৯২’তে একে অপরের সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়েছিলেন প্রসেনজিৎ ও দেবশ্রী। তবে বিয়ের পর তাদের সেই বিবাহিত জীবন বেশিদিন টেকেনি। বিয়ের তিন বছরের মধ্যেই ভেঙে যায় তাদের সংসার। তবে তারপর থেকে একসাথে পর্দায় আর দেখা যায়নি তাদের।

Advertisement

উল্লেখ্য, প্রথম বিয়ে ভাঙার পর প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায় অপর্ণা গুহঠাকুরতার সাথে সাত পাক ঘুরেছিলেন। তবে সেই বিয়েও টেকেনি খুব বেশিদিন। তাদের দুজনের সন্তান মেয়ে প্রেরণা। এরপরে তিনি গাঁটছড়া বেঁধেছিলেন অর্পিতা চট্টোপাধ্যায়ের সাথে। এখনো তারা রয়েছেন একইসাথে। তাদের একমাত্র ছেলে তৃষাণজিৎ। বলাই বাহুল্য, তিনিও খুব একটা অপরিচিত নন বর্তমান প্রজন্মের কাছে।

পরবর্তীকালে দ্বিতীয়বার বিয়ের পিঁড়িতে না বসলেও নিজের কেরিয়ার, নাচ, সমাজসেবা ও রাজনৈতিক জীবন নিয়ে ব্যস্ত হয়ে পড়েছিলেন অভিনেত্রী। বর্তমানে ‘সর্বজয়া’ শেষ হওয়ার পর থেকে সোশ্যাল মিডিয়াতে বেশ সক্রিয় থাকার চেষ্টায় থাকেন অভিনেত্রী। তবে সম্প্রতি এই সময়কে একটি সাক্ষাৎকার দিয়েছেন তিনি। সেখানেই বোনঝি রানি মুখার্জ্জীর সাথে নিজের সম্পর্ক নিয়ে কথা বলেছেন তিনি। পাশাপাশি মুখ খুলেছেন প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায় সম্পর্কেও।

Advertisement

বেশ কিছুসময় আগে প্রকাশ্যে নিজের ছোটবেলাকার বন্ধু ও প্রাক্তন স্ত্রী দেবশ্রী রায়ের সাথে সমস্ত ব্যাপার মিটমাট করে নেওয়ার ইচ্ছা প্রকাশ করেছিলেন প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়। এমনকি এও শোনা গিয়েছে, অভিনেতার তরফ থেকে দেবশ্রী রায়ের কাছে ছবিতে অভিনয় করার প্রস্তাবও গিয়েছে। এই প্রসঙ্গে অভিনেত্রীর কাছে প্রশ্ন রাখা হলে তিনি স্পষ্ট ভাষায় জানান, কোন একটি মানুষ কখনো ইন্ডাস্ট্রি হতে পারে না। একজন অভিনেত্রী হিসেবে তিনি ভালো কাজ করতে চান। এক্ষেত্রে তার সহ-অভিনেতা বা অভিনেত্রী কারা হবেন! সেই নিয়ে তার কোন মাথাব্যাথা নেই। তিনি স্পষ্ট কথায় এও বলেছেন, ইন্ডাস্ট্রি একজনই ছিলেন তিনি উত্তম কুমার। উল্লেখ্য, প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়ের তরফ থেকে সত্যি কোন ছবির প্রস্তাব এসেছে কিনা সেই প্রসঙ্গে কোনো স্পষ্ট জবাব দেননি অভিনেত্রী।

খুব সম্প্রতি অনুষ্ঠিত হয়েছিল কলকাতা চলচ্চিত্র উৎসব। কিন্তু সেখানে আমন্ত্রিত থাকা সত্বেও দেখা মেলেনি দেবশ্রী রায়ের। এই প্রসঙ্গে কয়েকদিন আগেই মিডিয়ার সামনে তিনি স্পষ্ট ভাষায় বলেছিলেন, যোগ্য সম্মান না পেলে তিনি কোথাও যান না। এই প্রসঙ্গে তিনি সাক্ষাৎকারে জানিয়েছেন, অনেক উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে গিয়েছেন তিনি। সত্যজিৎ রায়ের পাশেও দাঁড়িয়েছেন অভিনেত্রী।‌ বর্তমানে তার আর এইসবের প্রয়োজন নেই বলেই জানিয়েছেন অভিনেত্রী।

একই শহরে থাকা সত্ত্বেও একে অপরের সাথে সাক্ষাৎ করেননি রানি মুখার্জ্জী ও দেবশ্রী রায়। সম্ভবত ব্যস্ততার কারণেই এমন ঘটেছে। তবে সম্প্রতি অভিনেত্রীর মেয়ে আদিরার জন্মদিনের অনুষ্ঠানেও নিমন্ত্রিতদের তালিকায় ছিলেন না দেবশ্রী। তবে সেই প্রসঙ্গে কোনো রকম মন্তব্য করতে শোনা যায়নি অভিনেত্রীকে। ঐ সময় তার মা মারা যাওয়ায় তাকে আর আলাদাভাবে নিমন্ত্রণ করার সাহস দেখাননি রানি মুখার্জ্জী। তবে এই মুহূর্তে অভিনয়ের পাশাপাশি নিজের নাচের গ্রুপের উপরেও মনোযোগী হতে চান দেবশ্রী। তাদের নিয়ে অভিনেত্রীর নতুন কিছু করার ইচ্ছার কথাও জানিয়েছেন সাক্ষাৎকারে। বলাই বাহুল্য, এই সময়কে দেওয়া এই সাক্ষাৎকারের সূত্র ধরেই আপাতত চর্চিত টলিউডের চুমকি।

Related Articles

Back to top button