নিউজদেশ

দক্ষিণ ভারতের দিকে নজর বিজেপির, রাজ্যসভায় মনোনীত চার সদস্য দক্ষিণ ভারতেরই

এই তালিকায় যেমন রয়েছেন পি টি ঊষা, তেমনই রয়েছেন সংগীত পরিচালক ইলাইয়া রাজা

×
Advertisement

এবারে দাক্ষিণাত্য অভিযানে নামতে চলেছে ভারতীয় জনতা পার্টি। বুধবার রাজ্যসভার মনোনীত সাংসদ হিসেবে চার বিশিষ্ট ব্যক্তিত্বের নাম ঘোষণা করেছে বিজেপি। ঘটনাচক্রে তারা চারজনেই কিন্তু দক্ষিণ ভারতের বাসিন্দা। ক্রীড়াবিদ পি টি ঊষা, সংগীত পরিচালক ইলাইয়া রাজা, চলচ্চিত্র পরিচালক ভি বিজয়েন্দ্র প্রসাদ এবং মানবতাবাদী ধর্ম গুরু বীরেন্দ্র হেগরে রয়েছেন এই তালিকায়। রাজ্যসভায় মনোনীত এই চার বিশিষ্টজনকে অভিনন্দন জানিয়েছেন খোদ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

Advertisement

সংসদের উচ্চকক্ষে সদ্য মনোনীত অলিম্পিক ক্রীড়াবিদ পি টি ঊষা কেরলের বাসিন্দা। পদ্মবিভূষণ সম্মান প্রাপ্ত ইলাইয়া রাজা তামিলনাড়ুর বাসিন্দা। তার পাশাপাশি তিনি আবার দলিত সমাজের প্রতিনিধিও বটে। বিজয়েন্দ্র অন্ধ্রপ্রদেশের বাসিন্দা এবং বীরেন্দ্র কর্নাটকের বাসিন্দা। চারজনের কেউই প্রত্যক্ষভাবে রাজনীতিতে না থাকলেও জনমানুষে তাদের ভাবমূর্তি বেশ উজ্জ্বল। লোকসভা ভোটের আগে রাষ্ট্রপতি মনোনীত সদস্য হিসেবে তাদের রাজ্যসভায় পাঠিয়ে দক্ষিণ ভারতের মন জয় করতে চাইছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তাই হিসাব কষেই দাক্ষিণাত্য তাস খেলতে চেয়েছেন বলে রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের একাংশ মনে করছেন।

তবে দক্ষিণ ভারতের পাঁচটি রাজ্যের মধ্যে একমাত্র বিজেপির হাতে রয়েছে কর্ণাটক। এছাড়া পুরুষেরইতে এনআর কংগ্রেস এবং এডিএমকের শাসক জোটের শরিক রয়েছে বিজেপি। কেরল অন্ধ্রপ্রদেশ এবং তামিলনাড়ুতে এখনো পর্যন্ত সাংগঠনিক ক্ষমতা তৈরি করতে পারেনি পদ্ম শিবির। তবে ২০১৯ এর লোকসভা নির্বাচনে এককভাবে তেলেঙ্গানায় লড়াই করে চারটি আসন জয়লাভ করেছিল তারা।

Advertisement

এই পরিস্থিতিতে হায়দ্রাবাদে দলের জাতীয় কর্ম সমিতির অধিবেশনে ২০২৪ সালের লোকসভা নির্বাচনে দাক্ষিণাত্য থেকে আরো বেশি দলীয় সাংসদ তৈরি করার অভিযান শুরু করার পরিকল্পনা নিয়েছে বিজেপি। নরেন্দ্র মোদী এবং অমিত শাহেরা এই বৈঠকে অংশগ্রহণ করেছিলেন। তাই রাজ্যসভায় সাংসদ মনোনয়নে দেওয়া চমক কিছুটা সেই পরিকল্পনারই অংশ বলে মনে করছে রাজনৈতিক মহল। লোকসভা ভোটের আগে ২০২৩ সালে আবার তেলেঙ্গানায় বিধানসভা ভোট হওয়ার কথা। অনেকে মনে করছেন, এবারে নির্বাচনে সেখানকার শাসক দল TRS এর সঙ্গে বিজেপির মূল লড়াই হতে চলেছে।

Related Articles

Back to top button