টলিউডবিনোদন

মাটির স্বর্গে মনামী, নতুন বন্ধু বিলকিসকে নিয়ে তুললেন ছবি

×
Advertisement

প্রতিটি সাক্ষাৎকারে মনামী ঘোষ (monami ghosh)-এর জন্য একটি কমন প্রশ্ন থাকে, তিনি বিয়ে কবে করবেন। কিন্তু ছত্রিশটি বসন্ত পেরিয়েও মনামী অল্প হেসে এই প্রশ্নটি এড়িয়ে যান। কিন্তু এবার তাঁর একটি ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় তুমুল ভাইরাল হয়েছে। ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, মনামীর হাতে শাঁখা, পলা, নোয়া, সিঁথি রাঙা সিঁদুরে। লাল পাড় সাদা শাড়ি পরে একমনে সঞ্জয় লীলা বনশালী (sanjay leela bhansali) পরিচালিত ফিল্ম ‘দেবদাস’-এর গান গাইছেন তিনি। ভিডিওতে অনেকে মিলে তাঁকে সাজিয়ে দিচ্ছেন। নেটিজেনদের একাংশ ভেবেছিলেন মনামী হয়তো চুপিসাড়ে বিয়ে সেরে ফেললেন। কিন্তু এটি একটি ফটোশুটের ভিডিও। সম্ভবত আরো কয়েকটি বসন্ত মনামী একাই কাটানোর প্ল্যান করছেন।

Advertisement

সম্প্রতি ‘ডান্স বাংলা ডান্স জুনিয়র’-এর সেট থেকে মনামী নিজের কয়েকটি ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করেছেন। এর মধ্যে একটি ছবিতে মিঠুন চক্রবর্তী (Mithun chakraborty) ও দেব (Dev)-এর সঙ্গে দেখা যাচ্ছে মনামীকে। ছবিতে মনামীর পরনে রয়েছে মাস্টার্ড রঙের ক্রপ টপ ও স্কার্ট। ছবিতে মনামীকে যথেষ্ট গ্ল‍্যামারাস লাগছে। অপর একটি ছবিতে মনামীর পরনে রয়েছে সবুজ রঙের ফুলস্লিভ ফ্লেয়ারড গাউন। তার সঙ্গে মনামীর ঠোঁটের লাল লিপস্টিক তাঁর রূপকে পরিপূর্ণতা দিয়েছে। লকডাউনের সময় থেকেই মনামী নিজের ইউটিউব চ্যানেলে প্রচুর ডান্স ভিডিও শেয়ার করছেন। কিছুদিন আগে বলিউড ফিল্ম ‘জুয়েল থিফ’-এর বিখ্যাত গান ‘হোঁটো মে অ্যায়সি বাত’-এর সঙ্গে লাস‍্যময়ী ডান্স ভিডিও শেয়ার করেছেন মনামী। তবে এই গানের সঙ্গে কিছু স্টেপ এক রেখে অধিকাংশটাই মনামী নিজেই কোরিওগ্রাফ করেছেন। ভিডিওতে মনামীর পরনে রয়েছে কমলা রঙের লং ঘাগরা স্কার্ট ও কালো রঙের ক্রপ টপ। বানজারা লুক ক্রিয়েট করার জন্য মনামী পরেছেন ফিউশন জুয়েলারী। মনামীর এই ভিডিওটি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। এর আগেও মনামী নিজের ইন্সটাগ্রাম প্রোফাইলে সলমন খান (Salman khan)অভিনীত মুভি ‘দাবাং’ -এর ‘চোরি কিয়া রে জিয়া’ গানের সঙ্গে একটি ইন্সটাগ্রাম রিল শেয়ার করেছেন। এই রিলে মনামীর পারফরম্যান্স নেটিজেনদের কাছে প্রশংসনীয় হয়েছে। এই ইন্সটাগ্রাম রিলে মনামীর পরনে রয়েছে সাদা কুর্তি, চশমা, ছোট দুল। মনামীর এই লুক দর্শকদের মন জয় করতে পেরেছে। এই কারণে মনামীর ইন্সটাগ্রাম রিলটি যথেষ্ট ভাইরাল হয়েছে। রিলটি দেখে অনায়াসেই বোঝা যাচ্ছে মনামীর জীবনের সবচেয়ে বড় প্রেম হলো তাঁর নাচ। নাচের প্রতি তাঁর এই ভালোবাসা মনামী কারোর সাথে কোনদিন ভাগ করে নিতে পারবেন না।

গত বছর মনামী সাদা-কালো পোশাকে বেশ কয়েকটি ছবি শেয়ার করেছিলেন ইন্সটাগ্রামে। সেই ছবিগুলির মধ্যে একটি ছবিতে মনামীর পরনে ছিল কালো রঙের লং স্কার্টের সঙ্গে সাদা-কালো লম্বা শার্ট। কিন্তু ফ্যাশন ডিজাইনাররা মনামীর ড্রেসের এই কম্বিনেশনকে পছন্দ করেননি। তবে মনামী বরাবর সবচেয়ে বেশি প্রশংসনীয় হয়েছেন ঘরোয়া সাজে। প্রকৃতপক্ষে অভিনয় জীবনের শুরু থেকেই মনামীকে দর্শকরা ঘরোয়া রূপে পাশের বাড়ির মেয়ে হিসাবেই গ্রহণ করেছেন। ফলে মনামী হঠাৎ নতুন ধরনের লুক ট্রাই করলে অনেক সময় তাঁকে সমালোচনার মুখোমুখি হতে হচ্ছে। তবে সেইসব সমালোচনায় কান না দিয়ে মনামী নিজের মতো এগিয়ে চলেছেন।

Advertisement

মনামী ঘুরতে যেতে খুবই ভালোবাসেন। চারিদিকে আবারও আছড়ে পড়ছে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ। কিন্তু এর মধ্যেই মনামী পাড়ি দিয়েছেন ‘ভূস্বর্গ’ কাশ্মীরে। সেখানে কখনও কালো রঙের স্টোল, কখনও সবুজ ওভারসাইজড সোয়েটার পরে মনামীকে সুন্দর লেগেছে। কাশ্মীরে গিয়ে একদিকে মনামী বানিয়েছেন ইন্সটাগ্রাম রিল, অপরদিকে ঘোড়ায় চড়েছেন। স্বাদ নিয়েছেন কাশ্মীরী ‘কাহবা’-র। মনামী কাশ্মীরী মেয়ে ও ‘কাহবা’ বিক্রেতা বিলকিস (Bilqis)-এর সঙ্গে ছবি শেয়ার করেছেন ইন্সটাগ্রামে। তাঁদের সামনে ইটের প্রায় নিভন্ত চূলায় বসানো ছিল ‘কাহবা’ পূর্ণ কাশ্মীরী ‘সামোভর’। মনামীর সঙ্গে বিলকিসের ছবি ইন্সটাগ্রামে ভাইরাল হয়েছে।

2020 সালে শেষ হয়েছে মনামী অভিনীত জনপ্রিয় বাংলা ডেইলি সোপ ‘ইরাবতীর চুপকথা’। গত বছর পুজোর সময় রিলিজ করেছে টলি ও টেলি টাউনের অভিনেত্রীদের নিয়ে তৈরি দুর্গাপূজার থিম মিউজিক ভিডিও ‘দুগ্গা এলো’। এই মিউজিক ভিডিওয় মনামী একজন ফটোগ্রাফারের চরিত্রে অভিনয় করেছেন। মিউজিক ভিডিওটি ইউটিউবে ওয়ান মিলিয়ন ভিউয়ার ছাড়িয়ে গিয়েছে। এছাড়া কিছুদিন আগে মনামী ‘দুগ্গা এলো’র মেকিং ভিডিও শেয়ার করেছিলেন নিজের ইউটিউব চ্যানেলে। সেই ভিডিওটিও যথেষ্ট জনপ্রিয় হয়েছে।

Related Articles

Back to top button