Today Trending Newsটলিউডবিনোদন

Mimi-Parno: ‘মুখ বন্ধ কর’, সোশ্যাল মিডিয়ায় পার্নো মিত্রকে ধমক দিলেন মিমি চক্রবর্তী

পার্নো এবং মিমির সম্পর্কের মধ্যে কোনো টানাপোড়েন চলছে?



২০২১ নির্বাচন টলিউডের অনেকের মধ্যে বেশ কিছু পরিবর্তন নিয়ে চলে এসেছে। বর্তমানে টলিউড একেবারে দুই ভাগে বিভক্ত। একজন রয়েছেন তৃণমূলে এবং অন্য দলে রয়েছেন বিজেপিতে। কয়েকজন এখনো বামপন্থী থাকলেও মূলত তৃণমূল পন্থী এবং বিজেপি পন্থীর সংখ্যা বর্তমানে টলিউডে অনেক বেশি। যদিও, দলগতভাবে আলাদা হলেও তাদের মধ্যেকার রসায়নে তেমন কিছু পরিবর্তন ঘটেনি।

কিছুদিন আগেই যখন তৃণমূল সাংসদ নুসরাত জাহান এর প্রেগনেন্সি নিয়ে উত্তাল ছিল নেট মাধ্যম, সেই সময় আমরা দেখেছিলাম বিজেপি টিকিটে ভোটে দাঁড়ানো তনুশ্রী এবং শ্রাবন্তী নুসরাতের পাশে দাঁড়িয়েছিলেন। তথাগত রায় আবার কিছুদিন আগে বিজেপির তিন তারকা প্রার্থী শ্রাবন্তী পায়েল এবং তনুশ্রী কে নগরের নটি বলে কটাক্ষ করেছিলেন। কিন্তু তার পরেও দল নির্বিশেষে সকলেই ছুটে এসেছিলেন সেই মন্তব্যের বিরোধিতা করতে। কিন্তু সম্প্রতি জানা যাচ্ছে, পার্নো মিত্রর সঙ্গে মিমি চক্রবর্তীর নাকি মন-কষাকষি চলছে। জানা যাচ্ছে সোশ্যাল মিডিয়াতে প্রকাশ্যে পার্নো মিত্র কে তিনি নাকি Shut Up পর্যন্ত বলে দিয়েছেন। কিন্তু কী কারণে এত সমস্যা?

আদতে, করোনাভাইরাস এর সময় অনেক দিন ধরে শুটিং ফ্লোর বন্ধ রয়েছে। মিমি চক্রবর্তী বহুদিন ধরে বাড়িতে বসা। তার মধ্যে আবার অসুস্থতার কারণে তিনি বেশ কয়েকদিন ঘরবন্দি ছিলেন। তারপরে আবার তার ওপর দিয়ে গিয়েছিল সেই ভুয়ো ভ্যাকসিনের খাঁড়া। এই পরিস্থিতিতে তাকে আবার নিয়মিত মেডিকেল চেকআপ এর মধ্যে দিয়ে যেতে হয়েছিল। তাই তো আর মন খারাপ হয়েছিল বেশ কয়েকদিন। সেই মন ঠিক করতে সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় তিনি একটি থ্রো ব্যাক ভিডিও পোস্ট করেছেন, যেখানে তাকে দেখা যাচ্ছে একটি কমলা রঙের মোটা জ্যাকেট পরে তিনি লন্ডনের রাস্তায় ঘুরে বেড়াচ্ছেন।

আসলে ঐ ভিডিওটা হল ২০১৯ এর একটি ভিডিও যখন তিনি লন্ডন বেড়াতে গিয়েছিলেন, সেই সময়কার। এই ভিডিও পোস্ট করে তিনি ক্যাপশন লিখেছেন, “যখন সমস্ত কিছু স্বাভাবিক ছিল আর মাস্ক জীবনের একটা অঙ্গ ছিল না।” সেই পোস্টের নিচে পার্নো মিত্র কমেন্ট করেছেন, “যাব যাব, এত ব্যস্ত হোস না”। তার সঙ্গে জুড়ে দিয়েছেন একটি হাসির স্মাইলি। এই কমেন্টের উত্তরেই মিমি চক্রবর্তী লিখেছেন Shut Up।

Related Articles

Back to top button