নিউজরাজ্য

করোনা ভাইরাসের টিকা সার্টিফিকেটের নরেন্দ্র মোদির ছবি কেন? প্রশ্ন তুললেন মমতা

কোন জিনিসের ছবি লাগানোর পরামর্শ দিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়?



এবারে করোনা ভাইরাসের টিকার সার্টিফিকেটে নরেন্দ্র মোদির ছবি নিয়ে কটাক্ষ করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আজকে একটু জনসভায় ভার্চুয়ালি বক্তৃতা রাখতে গিয়ে তিনি দাবি করলেন, করোনা ভাইরাসের টিকা করনের সার্টিফিকেটে জাতীয় পতাকার ছবি থাকা উচিত, নরেন্দ্র মোদির ছবির বদলে। ছাত্র পরিষদের প্রতিষ্ঠা দিবসে ভার্চুয়াল সভায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে এরকম মন্তব্য করলেন তিনি।

তার পাশাপাশি কেন্দ্র কে আক্রমণ করে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বললেন, ‘কেন্দ্র জিএসটি এবং বিপর্যয় মোকাবিলার সময় টাকা দেয় না।। কিন্তু কেন্দ্র সব সময়ে ছবি লাগাতে ব্যস্ত হয়ে পড়েছে।। যখনই যেখানে ছবি পাচ্ছে সেখানে লাগিয়ে দিচ্ছে। এমনকি টিকা দিয়ে তাতে নিজের ছবি লাগিয়ে দিচ্ছে।। তাহলে যদি টিকা লাগানোর পরে কারো মৃত্যু হয় তাহলে ডেথ সার্টিফিকেট আপনার ছবি লাগিয়ে দেওয়া উচিত। এত মানুষ মারা গেলেন, তার প্রত্যেকের বাড়িতে একটা ছবি পাঠিয়ে দিই নাকি? একটা টিকা দেওয়ার কৃতিত্ব নিতেও ছবি লাগাতে হয় কেন? এটা কি ধরনের মানসিকতা? আমাদের এখানে সরকার যখন টিকা কিনে মানুষকে দিতে শুরু করলো সেই সময় আমাকে প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিল ছবি লাগানোর। আমি তখন বলেছিলাম লাগাতে হলে জাতীয় পতাকার ছবি লাগাও। দেশের জাতীয় পতাকা থেকে বড় তো আর কেউ হতে পারে না।’

যদিও করোনা ভাইরাসের টিকা সার্টিফিকেটে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ছবি লাগানো নিয়ে এর আগেও সরব হয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং তৃণমূল কংগ্রেস সহ অন্যান্য বিরোধী দল। যদিও বিরোধীদের দাবিতে গুরুত্ব দিতে চায়নি কেন্দ্রীয় সরকার। কিন্তু এবারে সরাসরি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সরব হলেন কেন্দ্রে টিকাকরণ কর্মসূচি নিয়ে। যদিও তিনি এর আগেও একাধিকবার প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি লিখেছেন।

কিছুদিন আগে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বৈঠকের সময় তিনি নিজেও জানিয়েছিলেন যেন বিনামূল্যে টিকার বন্দোবস্ত করা হয় বাংলার মানুষের জন্য।। যদিও তার পরে বেশ কিছু টিকা বাংলায় পাঠায় কেন্দ্রীয় সরকার।। তার পরেও আজকের সভা থেকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সরাসরি বিজেপি কে কটাক্ষ করে মন্তব্য রাখলেন। তিনি বললেন, ‘বিজেপি শুধু দুটো কাজ গুলি চালানো আর গালিগালাজ করা। কোন চমৎকার ওরা জানেনা।। ওরা শুধু জানে মিথ্যের পর মিথ্যে বলতে। তাই বলছি জোট বাধো তৈরি হন। মানুষের স্বাধীনতা নেই।’

Related Articles

Back to top button