বলিউডবিনোদন

৪৫ কোটি টাকা মাইনে, চিনে নিন শাহরুখের ম্যানেজার পূজা দাদলানিকে

মন্নতের রাজপুত্র আরিয়ান খান মাদক কান্ডে গ্রেফতারের পর শাহরুখ-গৌরীর পাশাপাশি আরও একটি নাম খুব বেশি লাইম লাইটে এসেছে। নাম পূজা দাদলানি। কে এই পূজা যাকে আরিয়ানের গ্রেপ্তারের পর থেকে এনসিবির অফিস থেকে শুনানির দিন আদালতে হাজির থাকা, পরিস্থিতি সম্পর্কে শাহরুখকে প্রতি মুহূর্তের খবর জানানো, মামলার প্রায় সমস্ত কিছুই খবরাখবর রাখতেন। ইনি হলেন শাহরুখের ম্যানেজার। পূজা ২০১২ সালে ম্যানেজার হিসাবে শাহরুখ খানের সঙ্গে যুক্ত হন পূজা। একদশকেরও বেশি সময় ধরে শাহরুখ ও তাঁর পরিবারের সঙ্গে ছায়াসঙ্গী হিসেবে রয়েছেন তিনি। দীর্ঘ ন’বছর পূজা কখনও অন্য কোনও তারকার ম্যানেজার হওয়ার কথা স্বপ্নেও ভাবেননি। বাদশার সমস্ত কাজের দায়িত্ব পূজার চেয়ে ভাল আর কেউ পালন করতে পারবেন বলে শাহরুখেরও মনে হয়নি। উপরন্তু এই ন’বছরে ক্রমে শাহরুখের পরিবারেরই সদস্য হয়ে উঠেছেন তিনি।

শাহরুখের যাবতীয় কাজ কর্মের দেখভাল করেন পূজা। আইপিএলে বাদশার কলকাতা নাইট রাইডার্স দলেরও যাবতীয় বিষয় দেখভাল করেন। শাহরুখ বিদেশে কোনও কাজে গেলে পূজাও তাঁর সঙ্গে যান। এমনকি কিং খানের ব্র্যান্ড এনডোর্সমেন্ট থেকে শুরু করে সমস্ত ব্যবসাই সামলান এই ম্যানেজার। কোনও বিষয়েই অভিনেতাকে সমস্যায় পড়তে দেন না তিনি।

শুধু শাহরুখ নয় তাঁর স্ত্রী তথা প্রযোজক গৌরী খানের সঙ্গেও পূজার রসায়ন ভাল। গৌরীর হাইপ্রোফাইল বন্ধুদের সঙ্গে অনেক ছবিতেই পূজাকে দেখা যায়। গৌরির সাথে বিভিন্ন পার্টিতে সামিল হন। এককথায় খান পরিবারের সদস্য বলা যেতে পারে। শাহরুখের ম্যানেজার হওয়ার স্বার্থে তিনিও বলিউডের তারকা হয়ে গিয়েছেন। বলিউডের বহু নামজাদা তারকা এখন সোশ্যাল মিডিয়াতে অনুসরণ করেন।

কিং খানের ছোট-বড় সমস্ত বিষয় সামলানোর জন্য মোটা পারিশ্রমিকও পেয়েছেন তিনি। একটি সূত্রের জানা গিয়েছে শাহরুখের সমস্ত দায়িত্ব সামলানোর জন্য বছরে ৪৫ কোটি টাকা উপার্জন করেন তিনি। এ ছাড়া প্রতি বছরই ধুমধাম করে পূজার জন্মদিন পালন করেন কিং খান। এই দিন দামি সমস্ত উপহারে ভরিয়ে দেন তাঁকে। পূজা এবং শাহরুখের জন্ম তারিখও এক তবে সাল আলাদা।

শুধুমাত্র শাহরুখের ম্যানেজার পূজা নন পাশাপাশতিনি ‘চেন্নাই এক্সপ্রেস’ ছবির সহ-প্রযোজকও। এ ছাড়া দিয়া মির্জার দ্বিতীয় স্বামীর আত্মীয় হন তিনি। পূজার স্বামী হিতেশ গুরনানি মুম্বইয়ের একটি নামী অলঙ্কার প্রস্তুত সংস্থার মালিক। সোনা-রুপো-হিরে সমস্ত ধরনের দামী গয়না রয়েছে তাঁর সংস্থায়। স্বামীর কাজেও বসাহায্য করে থাকেন পূজা। তাঁদের একটি মেয়ে রয়েছে।

তাই তো খান পরিবারের চরম বিপদে পাশে ছিলেন পূজা। তাই তো আরিয়ানের মামলার প্রায় সমস্ত কিছুই তাঁর উপর ছেড়ে দিয়েছিল শাহরুখ আর গৌরি। আরিয়ানকে নিজের ছেলের মতো স্নেহ করেন। এই ম্যানেজার পূজার সম্পর্কে সম্প্রতি বিস্ফোরক তথ্য সামনে এসেছে। আরিয়ানের গ্রেফতারের পর নাকি তিনি এই মামলার এক সাক্ষীকে মোটা টাকার বিনিময়ে প্রভাবিত করার চেষ্টা করেছিলেন তিনি, এমনই দাবি জানিয়েছিলেন এনসিবি। এনসিবি জানায় ওই সাক্ষী কিরণ পি গোসাভির সঙ্গে নাকি মুম্বইয়ের লোয়ার প্যারেলে দেখাও করেছিলেন পূজা। সেই সিসিটিভি ফুটেজ ও আছে আর তা নিয়েই সরগরম বিভিন্ন সংবাদমাধ্যম।
কিছুদিন আগে জামিনে ছাড়া পেয়ে নিজের পরিবারের কাছে ফিরে গিয়েছেন আরিয়ান। তবে এনসিবি-র কড়া নজরে আছেম। তাঁর বয়ানও রেকর্ড করা হতে পারে বলে জানা গিয়েছে।

Related Articles

Back to top button