নিউজরাজ্য

করোনা ভাইরাসের তৃতীয় ঢেউ রুখতে তৎপর রাজ্য, বাচ্চাদের জন্য বিশেষ ব্যবস্থা

এই বিশেষ অ্যাম্বুলেন্সের মধ্যে থাকবে ভেন্টিলেটর



এবারে এম্বুলেন্স এর মধ্যে থাকবে একটি আস্ত ভেন্টিলেটার। করোনা আক্রান্ত রোগীকে হাসপাতালে নিয়ে যাবার সময় যদি ভেন্টিলেটরের দরকার পড়ে সেই জন্য রাজ্য সরকারের তরফ থেকে এই নতুন ব্যবস্থা গ্রহণ করা হচ্ছে। এর ফলে যদি করোনা সংক্রমণ হয়ে থাকে এবং আপনার প্রবল শ্বাসকষ্ট হয় তাহলে এই বিশেষ ধরনের এম্বুলেন্স আপনাকে সাহায্য করবে। করোনাভাইরাস এর তৃতীয় ঢেউ আসছে। তাই শিশুদের সুরক্ষিত রাখার জন্য নতুন ব্যবস্থা গ্রহণ করেছেন রাজ্য সরকার।

রাজ্য স্বাস্থ্য দপ্তরের তরফ থেকে ইতিমধ্যেই শতাধিক এরকম ভেন্টিলেটর যুক্ত এম্বুলেন্স তৈরি করা হয়েছে। জেলা হাসপাতাল এরকম ভেন্টিলেটরবাহী এম্বুলেন্স থাকবে। জানিয়ে দেওয়া হয়েছে বাচ্চার সঙ্গে বাচ্চার মা হাসপাতালে যেতে পারেন। এই এম্বুলেন্সে বিশেষভাবে মায়ের বসার জন্য একটি জায়গা রাখা হয়েছে। রাজ্যে এই প্রথম এরকম চলমান ভেন্টিলেটার যুক্ত এম্বুলেন্স তৈরি করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য দপ্তরের আধিকারিকরা।

তবে তৃতীয় ঢেউতে শিশুদের আক্রান্ত হবার সম্ভাবনা অনেকটা কম বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যকরতারা। বিভিন্ন রাজ্যের শিশু বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে কথা বলে তারা সিদ্ধান্তে উপনীত হয়েছেন, এবারে করোনাভাইরাস এর তৃতীয় ঢেউ এর ক্ষেত্রে বাচ্চাদের আক্রান্ত হবার সংখ্যা কিছুটা কম হবে। তোবে, রাজ্য সরকার এখনই হাল ছেড়ে দিচ্ছে না, বরং তারা বর্তমানে শিশুদের সম্পূর্ণ সুরক্ষা দেওয়ার জন্য পরিকল্পনা গ্রহণ করছেন। রাজ্য স্বাস্থ্য দপ্তরের তরফ থেকে জানানো হয়েছে ১৪ থেকে ১৮ বছরের বাচ্চাদের জন্য অন্য ব্যবস্থা রয়েছে। তাদের ক্ষেত্রে হাসপাতালে ভর্তি হবার ব্যাপারেও নতুন পথ বাতলে দিয়েছে রাজ্য স্বাস্থ্য দপ্তর।

রাজ্য স্বাস্থ্য দপ্তর জানিয়েছে যদি ছেলে আক্রান্ত হয় তাহলে পুরুষ ওয়ার্ডে ভর্তি করা হবে। আর যদি মেয়ে অসুস্থ হয় তাহলে মহিলা ওয়ার্ডে মায়ের সঙ্গে থাকতে পারে। যদি বাবা এবং মা দুজনে অসুস্থ হন, অথবা বাচ্চার বাবা মা জীবিত না থাকেন তাহলে কোভিড ওয়ারিয়ার থাকবেন। প্রত্যেকটি বাচ্চার ওয়ার্ডে একাধিক কোভিড ওয়ারিয়ার নিয়োগ করা হবে। বাচ্চাদের দেখভাল করবেন তারা, এবং তাদের যখন যা প্রয়োজন হবে তার খেয়াল রাখবেন তারা।

Related Articles

Back to top button