দেশনিউজব্যবসা-বানিজ্য ও অর্থনীতি

লকডাউনে বেকারত্বের হার বিগত ৪৩ মাসে সর্বাধিক, বিপুল আর্থিক ক্ষতি ভারতের

×
Advertisement

করোনা ভাইরাসের প্রকোপে দেশের অর্থনীতির হাল খারাপ। বিশেষজ্ঞরা আগেই জানিয়েছিলেন যে করোনা ভাইরাসের জন্য এই লকডাউন অর্থনীতির উপর বিরাট ফেলবে। বেকারত্বের হার আরও বাড়বে, বাড়বে কর্মহীনদের সংখ্যা। সেরকমই কিছুর আভাস পাওয়া গেলো সেন্টার ফর মনিটরিং ইন্ডিয়া ইকোনমি নামে একটি সংস্থার রিপোর্টে। মুম্বই ভিত্তিক এই সংস্থার রিপোর্টে দেখা যাচ্ছে, বিগত ৪৩ মাসের মধ্যে গত মার্চ মাসে দেশে বেকারত্বের হার সবচেয়ে বেশি। মার্চ মাসে বেকারত্বের হার বেড়ে পৌঁছে গেছে ৮.৭ শতাংশে যা সেপ্টেম্বর ২০১৬ এর পর সবচেয়ে বেশি।

Advertisement

ওই সংস্থা জানিয়েছে দেশে কর্মরতদের সংখ্যা যেমন কমেছে তেমনই নতুন নিয়োগ প্রায় হয়নি বললেই চলে। লেবার পার্টিসিপেশন রেট নামে একটি সূচকের দ্বারা ওই সংস্থা দেখিয়েছে কিভাবে বেকারত্বের হার বেড়েছে। তাতে দেখা যাচ্ছে, প্রথম বারের জন্য এই সূচক ৪২ শতাংশের এর নীচে নেমে গেছে। মার্চ মাসে এই সূচক ছিল ৪১.৯ শতাংশ। ওই সংস্থার চেয়ারম্যান মহেশ ভ্যাস লিখেছেন, ‘মার্চে এনপিআর সূচক নেমেছে হু হু করে। জানুয়ারিতে যেখানে এই সূচক ছিল ৪২.৯৬ শতাংশের ঘরে, মার্চে তা হয়েছে ৪১.৯ শতাংশে।

সংস্থার রিপোর্টে দেখা যাচ্ছে, ২০২০ এর জানুয়ারিতেই কর্মরতদের সংখ্যা ছিল ৪১ কোটি ১০ লক্ষ, মার্চে তা হয়েছে ৩৯ কোটি ৬০ লক্ষ। বেকারের সংখ্যা ৩ কোটি ৮০ লক্ষতে পৌঁছে গিয়েছে যা জানুয়ারিতে ছিল ৩ কোটি ২০ লক্ষ। করোনা ভাইরাসের জন্য দেশ জুড়ে চলছে ২১ দিনের লকডাউন। ১৪ তারিখ পর্যন্ত চলবে এই লকডাউন। এই লকডাউনের সময় দেশের অর্থনীতি যে তলানিতে ঠেকবে তা আগেই জানিয়েছিলেন অর্থনীতিবিদরা। জিডিপি কমবে উল্লেখযোগ্য ভাবে। কিন্তু বেকারত্ব যে এতটা কমবে সেটা তারা আন্দাজ করেননি।

Advertisement

Related Articles

Back to top button