নিউজপলিটিক্সরাজ্য

Dilip Ghosh: শুভেন্দুর বিরুদ্ধে বাড়ছে ক্ষোভ! বিজেপির বহিষ্কৃত নেতাকে নিয়ে নিজের অবস্থান জানালেন দিলীপ

দিন যত যাচ্ছে বঙ্গ বিজেপি অন্দরে জট বেড়েই চলেছে। সময়ের সাথে সাথে দলীয় কর্মীদের সমস্যা আরও বেশি করে প্রকট হচ্ছে। গেরুয়া শিবিরের শীর্ষ স্তরের নেতা বিশেষত বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারীকে নিয়েই দলের দলীয় কর্মীদের অসন্তোষ বাড়ছে। বুধবারেই বিরোধী দলনেতা শুভেন্দুর সততা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন হাওড়া সদরের বিজেপি সভাপতি সুরজিৎ সাহাকে। এরপর অবশ্য দল থেকে তাঁকে বহিষ্কার করা হয়েছে । আর এই নিয়ে এখন বঙ্গ রাজনীতি চর্চা তুঙ্গে। সুরজিৎ সাহার বহিষ্কার প্রসঙ্গেই এবার মুখ খুলেছেন বিজেপির সর্ব ভারতীয় সহ সভাপতি দিলীপ ঘোষ।

বৃহস্পতিবার সকালে নিউটাউন ইকোপার্কে প্রাতঃভ্রমনে এসে দিলীপ ঘোষ এই প্রসঙ্গে বলেন, দলের কর্মীদের মনের মধ্যে সন্দেহের পরিবেশ তৈরি হয়েছে। এদিন তিনি হাওড়ার বিজেপি নেতা সুরজিৎ সাহাকে বহিস্কারের কাজ ঠিক বলেই দাবি করেছেন দিলীপ ঘোষ। প্রকাশ্যে বলেছেন, ” ঠিক আছে। পার্টির ডিসিপ্লিন একশন হয়েছে। পার্টির ডিসিপ্লিন ভাঙলে পার্টি ব্যবস্থা নেবে। মিটে গিয়েছে।” শুভেন্দু অধিকারীকে বিজেপি উচ্চ ও নিম্ন স্তরের বহু নেতাই যে পছন্দ করেন না তা নিয়ে রাজনৈতিক মহলের অন্দরে প্রায়ই কন্দোল চলছে।

সুরজিৎ প্রসঙ্গের পাশাপাশি বিরোধী নেতা শুভেন্দু অধিকারীকে নিয়ে দলের মধ্যে একটা অসন্তোষ রয়েছে তা প্রকাশ্যে মেনে নিয়েছেন দিলীপ ঘোষ। শুভেন্দুকে নিয়ে দলের মধ্যে ক্ষোভ রয়েছে এই প্রশ্ন করা হলে দিলীপ ঘোষ বলেছেন, “অসন্তোষ আগে থেকেই আছে। যখন নির্বাচন হয়েছে তারপর অনেকেই চলে গিয়েছেন। আস্তে আস্তে ওটা স্বাভাবিক হচ্ছে। মনের মধ্যে সকলের সন্দেহের পরিবেশ তৈরি হয়েছে। বহু লোক এসেছে বহু লোক চলে গিয়েছে। সেইজন্যে অনেকের ধারণার বশবর্তী হয়ে অনেক কিছু কথাবার্তা বলছে।”

সামনেই পুরভোট তার আগেই দলের একজন শীর্ষ নেতার বিরুদ্ধে বিজেপি সভাপতির এই বিস্ফোরক মন্তব্য কি কোনো প্রভাব ফেলবে এই নিয়ে প্রশ্ন করা হয়। এই প্রসঙ্গে দিলীপ ঘোষ জানিয়েছেন, “পার্টি একটা সিস্টেমে কাজ করে হাজার হাজার কার্যকর্তা কাজ করছেন। এক একজনের সমস্যা হতেই পারে এর আগে অনেকেই পার্টি ছেড়ে চলে গিয়েছেন। এটা নিয়ে পার্টি খুব একটা চিন্তা করে না। যারা বুথ স্তরের কার্যকর্তা তারা লড়াই করে পার্টিকে জেতাবে।”

উল্লেখ্য,ডিসেম্বরে হাওড়ক আর কলকাতাতে পুরসভা ভোট। এর জন্য মঙ্গলবার বৈঠকে বসেছিল রাজ্য বিজেপি। মঙ্গলবারের ওই বৈঠক থেকেই নানান বিতর্ক শুরু হয়। আর এ দিনের বৈঠকে শুভেন্দু অধিকারী নাকি হাওড়ার কয়েকজন বিজেপি নেতার বিরুদ্ধে তৃণমূলের সঙ্গে গোপন আঁতাতের অভিযোগ আনা হয়। এরপর বুধবার প্রকাশ্যে এসেছে হাওড়া জেলার বিজেপি সভাপতি সুরজিৎ সাহার বিস্ফোরক মন্তব্যের ভিডিও। যেখানে তিনি সরাসরি শুভেন্দু অধিকারীর নাম করে ক্ষোভ প্রকাশ করেছিলেন। এ দিন তিনি বলেন, তৃণমূলের সঙ্গে আঁতাতের অভিযোগ শুভেন্দুকে প্রমাণ করতে হবে সকলের সামনে, নাহলে প্রকাশ্যে ক্ষমা চাইতে হবে। এমনকি তাঁকে বহিষ্কার করার পরও সুরজিৎ সাহা অভিযোগ করেছেন, বিজেপিতে তৃণমূলিকরণ হচ্ছে।

Related Articles

Back to top button