নিউজপলিটিক্সরাজ্য

স্বাস্থ্য সাথী কার্ড গ্রহণ করলেন দিলীপ ঘোষের বাড়ির লোক, দলটা মুছে যাওয়ার আগে সারেন্ডার করছেন: অনুব্রত

দলটাই তো আর থাকবে না, তাই দলটা মুছে যাওয়ার আগে সারেন্ডার করে দিলেন দিলীপ ঘোষ(Dilip Ghosh), মন্তব্য অনুব্রত মণ্ডলের( Anubrata Mondal)

Advertisement

স্বাস্থ্য সাথী কার্ড নিয়ে নিরন্তর রাজ্য সরকারকে কটাক্ষ করে চলেছে বিজেপি নেতৃত্ব। স্বাস্থ্য সাথী কার্ড এ কিভাবে তা বাড়ি প্রকল্প বলেও তারা দাবি করছেন প্রতিদিন। কিন্তু এবারে বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের সদস্যরা লাইনে দাঁড়িয়ে সংগ্রহ করলেন স্বাস্থ্য সাথী কার্ড। কেন্দ্রের আয়ুষ্মান ভারত প্রকল্প থেকে রাজ্যের মানুষকে বঞ্চিত করার অভিযোগে বারবার তৃণমূলকে বিঁধতে চলেছেন বিজেপি নেতৃত্বের সকলেই। কিন্তু এবারে স্বাস্থ্য সাথী কার্ড গ্রহণ করলেন বিজেপি নেতা দিলীপ ঘোষের (Dilip Ghosh) বাড়ির লোক। আর এই ঘটনা নিয়ে বীরভূম জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল (Anubrata Mondal ) দিলীপ ঘোষকে তীব্র কটাক্ষ করলেন।

তিনি বলছেন, দিলীপ ঘোষ স্বাস্থ্য সাথী কার্ড করিয়েছে, ওর পরিবারের সকলেই কার্ড করেছে। উপায় নেই। দেখছে দলটা থাকবে না, এই কারণে আগেভাগে সারেন্ডার করে স্বাস্থ্য সাথী কার্ড করিয়ে নিয়েছে। পূর্ব বর্ধমানের মঙ্গলকোটের বকশি নগর একটি জনসভায় যোগ দিয়েছিলেন এদিন অনুব্রত মণ্ডল। সেখান থেকে দিলীপ ঘোষকে তিনি তীব্র আক্রমণ করেছেন। বীরভূম জেলার সভাপতি বলেছেন, বিজেপির যারা যারা বাংলায় রয়েছেন, তারা সকলে ভেকধারী। ভেক না ধরলে ভিক্ষা পাবেন না। প্রসঙ্গত এই মন্তব্যের মাধ্যমে অনুব্রত মণ্ডল বিজেপির মুষ্টিভিক্ষা কর্মসূচিকে কটাক্ষ করেছেন।

স্বাস্থ্য সাথী কার্ড করানোর প্রসঙ্গে দিলীপ ঘোষের ভাই জানিয়েছেন, তিনি বাধ্য হয়ে এই কার্ড করিয়েছেন। নতুবা তার স্ত্রী যে স্ব সহায়ক দলের সঙ্গে যুক্ত আছেন তারা কার্ডের সুবিধা পাবেন না। যদিও কার্ড না করালে দলে থাকতে পারবেন না এরকম কোন নিয়ম কিন্তু স্বাস্থ্য সাথী কার্ড এর ক্ষেত্রে নেই। একইসঙ্গে দিলীপ ঘোষের ভাই আরো বলেছেন, গরিব মানুষেরা যাতে সুবিধা পায় সেই জন্য তার দাদা এই কার্ড করিয়েছেন। তৃণমূল এই প্রসঙ্গে বলেছেন, রাজনীতির জন্য বিরোধিতা করতে হয়, তাই বলছেন। কিন্তু দীলিপবাবুর এই কার্ডের উপর সম্পূর্ণ আস্থা আছে সেই জন্য উনার পরিবার এই কার্ড করেছে।

Tags

Related Articles

Back to top button