নিউজপলিটিক্সরাজ্য

‘মেয়ে কিছু কাজ না করলে, তাকে বিদায় করে দিতে হয়’, প্রকাশ্য জনসভায় বেফাস দিলীপ

জায়গায় জায়গায় শীতলকুচির পরে এবারে দিলীপ ঘোষ বলেছেন মেয়ে কোন কাজ না করলে তাকে বিদায় করতে হয়, বেশিদিন রাখতে নেই

×
Advertisement

বিধানসভা ভোটের মাঝখানেই একের পর এক বিতর্কিত মন্তব্য করে চলেছেন বিজেপি সাংসদ প্রথম পশ্চিমবঙ্গে বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ। এর আগে তিনি মন্তব্য করেছিলেন, “বেশি বাড়াবাড়ি করলে জায়গায় জায়গায় শীতলকুচি হবে।” পুনরায় তিনি একটি বেফাঁস মন্তব্য করে বিতর্কে জড়িয়েছেন। তিনি এবারে মন্তব্য করেছেন মহিলাদের অসম্মান করে। তিনি বলেছেন, “মেয়ে কিছু কাজ না করলে, মেয়ে কিছু না দিলে তাকে তখন বাড়িতে না রেখে বিদায় করে দিতে হয়।”

Advertisement

বরানগরে প্রগতি সংঘের মাঠে বরানগরের বিজেপি প্রার্থী পার্নো মিত্র এর সমর্থনে প্রচার করতে গিয়েছিলেন বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ। তিনি বলেছিলেন, “যে পরিবর্তন দিদি করেছেন সেটা বাংলার মানুষ চাইনি। উল্টে দিদি বাংলার মানুষের গণতান্ত্রিক অধিকার ছিনিয়ে নিয়েছেন। শান্তি-শৃঙ্খলা ছিনিয়ে নিয়েছেন। তাই মানুষ নিজেদের অধিকার ছিনিয়ে নেবার জন্য জয় শ্রীরাম ধ্বনি নিয়ে বাড়ি থেকে বেরিয়ে এসেছেন।” তার পরেই তিনি ওই বিতর্কিত মন্তব্য করেন।

বাংলার মহিলাদের প্রতি এরকম একটি অশালীন মন্তব্য করে বিতর্ক ডেকে আনলেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ। তার এই মন্তব্য বর্তমানে সোশ্যাল মিডিয়াতে তুমুল ভাইরাল হয়ে পড়েছে। রবিবার তিনি বলেছেন, “মেয়েকে মানুষতো চেয়েছিল। কিন্তু মেয়ে যখন কিছু দেয় না, তখন মেয়েকে বেশি দিন বাড়িতে রাখতে নেই। বিদায় করে দিতে হয়। ২ মে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এর বিদায় শুরু হবে।’

Advertisement

ভোট প্রচার করতে এসে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে এরকম ভাষাতেই কথা বলেন দিলীপ ঘোষ। তার পাশাপাশি তিনি মমতা ব্যানার্জির ১০ বছরের কাজের খতিয়ান ধরেন। সোশ্যাল মিডিয়াতে এই ভিডিওটি তুমুল ভাইরাল হয়ে পড়েছে।

Related Articles

Back to top button