টেক বার্তা

মাত্র ২০ হাজার টাকা খরচ করে এই বাড়িতে নিয়ে আসুন Hero HF Deluxe, দারুন ফিচারের সাথে পাবেন ব্যাপক মাইলেজ

এই বাইকে আপনারা প্রায় ৮০ কিলোমিটার প্রতি লিটারের মাইলেজ পেয়ে যেতে চলেছেন

×
Advertisement

যারা একটু কম দামের মধ্যে বাইক কিনতে ইচ্ছুক থাকেন তাদের জন্য অত্যন্ত জনপ্রিয় একটি বাইক হল হিরো এইচএফ ডিলাক্স। এই বাইকটি এই মুহূর্তে ভারতের বাইকের জগতে অত্যন্ত জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে এবং ভারতের বাজারে একটা আলাদা জনপ্রিয়তা তৈরি করে ফেলেছে নিজের। এই দামের মধ্যে এই মুহূর্তে বেশ কিছু জনপ্রিয় বাইক রয়েছে। তবে সেই সমস্ত বাইককে টেক্কা দিয়ে হিরো এইচএফ ডিলাক্স এই মুহূর্তে হয়ে উঠেছে ভারতের সবথেকে জনপ্রিয় সস্ত রেঞ্জের বাইক। এই বাইকটি খুব একটা দূরের জন্য ব্যবহার না করা গেলেও, কাছাকাছি রোজকারের ব্যবহারের জন্য এটি একটি দারুণ বাইক হয়ে উঠেছে। অফিসে যাওয়া হোক কিংবা প্রতিদিনের কাজকর্ম করা, সবকিছুর জন্যই ভারতীয় জনসাধারণ এই বাইকটি দারুন ভাবে ব্যবহার করে থাকেন।

Advertisement

আপনাদের জানিয়ে রাখি, যদি আপনার কাছে বাজেট একটু কম থাকে, তাহলে আপনি খুবই সহজে সেকেন্ড হ্যান্ড পদ্ধতিতে এই বাইকটি আপনি কিনে ফেলতে পারেন। আপনার জন্য সেকেন্ড হ্যান্ড বাইক হতে চলেছে একটি দারুণ অপশন। হিরো এইচএফ ডিলাক্স বাইক যদি আপনারা সেকেন্ড হ্যান্ড কেনেন তাহলে মাত্র কুড়ি হাজার টাকায় এই বাইকটি আপনি কিনে ফেলতে পারবেন। আপনাকে এত বেশি টাকা খরচ করতে হবে না।

এই মুহূর্তে ভারতের বেশকিছু কোম্পানি ব্যবহৃত বাইক বিক্রি করে থাকে। এগুলির মধ্যে অন্যতম হলো কার এন্ড বাইক নামের ওয়েবসাইটটি। এই মুহূর্তে এই ওয়েবসাইটে এই বাইকটি বিক্রির জন্য লিস্ট করা রয়েছে। এখানে লিস্ট করা এই বাইকটি একটি সেকেন্ড হ্যান্ড বাইক এবং এই ওয়েবসাইটে আপনারা এই বাইকের সঙ্গে সম্পর্কিত সমস্ত তথ্য পেয়ে যাবেন। শুধুমাত্র এই বাইকটি নয়, এছাড়াও আরো বেশ কিছু বাইক এই লিস্টে আপনারা পেয়ে যাচ্ছেন। তবে কার এন্ড বাইক ওয়েবসাইটে যে বাইকটি বিক্রির জন্য লিস্ট করা হয়েছে সেটি ২০২১ এর মডেলের একটি বাইক। এই বাইকটি এখনো পর্যন্ত দশ হাজার কিলোমিটার পর্যন্ত চালানো হয়েছে এবং জানুয়ারি ২০২১ সালে এই বাইকটি কেনা হয়েছিল। এই বাইকটি দিল্লিতে রেজিস্টার করা রয়েছে এবং এখনো পর্যন্ত সিঙ্গেল হ্যান্ড মেইনটেনেন্স করা হয়েছে। এই বাইকের কন্ডিশন এখনো পর্যন্ত বেশ ভালো।

Advertisement

আপনাকে এই ওয়েবসাইটে লগইন করে এই বাইকের ছবি এবং পরিস্থিতি বুঝে নিয়ে এই বাইকটি কেনা উচিত। পাশাপাশি আপনি এই ওয়েবসাইটের মাধ্যমে এই বাইকের মালিকের সঙ্গে সরাসরি যোগাযোগ করতে পারবেন। এই বাইকটি যদি আপনি ক্রয় করেন তাহলে এই বাইকের আসল কাগজপত্র এবং আরসি কপি আপনারা পাবেন। Emi এর মাধ্যমে যদি আপনি টাকা মেটাতে চান, তাহলে সেই বিকল্প আপনার কাছে রয়েছে।

Related Articles

Back to top button