জীবনযাপনসৌন্দর্য

Skin Care Tips: এই বিশেষ জিনিসটি মাসে দুবার মুখে লাগান, বদলে যাবে আপনার মুখের রঙ

×
Advertisement

সকল মানুষের মনের বাসনা যে তাদের ত্বক সবসময় পরিষ্কার, ঝকঝকে ও উজ্জ্বল থাকবে। এর জন্য, লোকেরা সমস্ত ধরণের ক্রিম এবং অন্যান্য পণ্য অবলম্বন করে, তবে তাদের প্রভাব কিছুক্ষণ পরে চলে যায়। এমন পরিস্থিতিতে আমরা আপনাদের জন্য নিয়ে এসেছি মুলতানি মাটির উপকারিতা। মুলতানি মাটি ত্বকের নানা ধরনের সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে।

Advertisement

মুলতানি মাটির বিশেষ বিষয় হল এটি শুধুমাত্র যে ত্বককে মসৃণ এবং উজ্জ্বল করতে পারে না তাই নয় বরং কালো দাগ কমাতে এবং ত্বকের টোন উন্নত করতেও সাহায্য করে।এটি আপনার ত্বক থেকে সব ধরনের তেল, ময়লা এবং মৃত কোষ দূর করতেও সহায়ক।

ত্বক বিশেষজ্ঞরা বলছেন যে মুলতানি মাটি তেল এবং অন্যান্য অমেধ্য শোষণ করার ক্ষমতার জন্য পরিচিত। এটি বিশেষ করে ত্বক সংক্রান্ত সমস্যা দূর করতে পারে। মুখে পার্লারের মতো আভা আনতে আপনি মুলতানি মাটির সাহায্যে ৩টি ধাপে ফেসিয়াল করতে পারেন।

Advertisement

ধাপ 1: পরিষ্কার করা
উপকরন:
১ চা চামচ মুলতানি মাটি
১/২ চা চামচ চন্দন গুঁড়া

ব্যবহারের পদ্ধতি:
প্রথমে দুটো জিনিসই ভালো করে মিশিয়ে নিন। এতে সামান্য পানি মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করুন। মুখে পাতলা লেয়ার লাগিয়ে শুকাতে দিন।কুসুম গরম জল দিয়ে ধুয়ে শুকিয়ে নিন।
উপকারিতা- এটি আরও ভালোভাবে মুখ পরিষ্কার করতে পারে। কারণ মুলতানি মাটি মুখের বাড়তি তেল শুষে নেবে, অন্যদিকে কয়েকটি গুঁড়ো ব্রণের কারণে হওয়া প্রদাহ কমিয়ে মুখে উজ্জ্বলতা আনবে।

ধাপ 2: এক্সফোলিয়েশন
উপকরন:-
২ টেবিল চামচ কাঁচা দুধ
১ চা চামচ কমলার খোসার গুঁড়া

ব্যবহারের পদ্ধতি:
কাঁচা দুধ এবং কমলার খোসার গুঁড়া মিশিয়ে নিন।তারপর এটি মিশ্রিত করুন এবং একটি সূক্ষ্ম পেস্ট তৈরি করুন। একটি তুলোর বল দিয়ে ক্লকওয়াইজ এবং অ্যান্টি ক্লকওয়াইজ মোশানে মুখ ম্যাসাজ করুন ৫ মিনিটের জন্যে। এটি আপনার মুখে ৫ মিনিটের জন্য রেখে দিন এবং তারপর ধুয়ে ফেলুন।

উপকারিতা- মুলতানি মাটি এবং কমলার খোসা মুখের দাগ দূর করতে সহায়ক। এগুলো ব্যবহার করে আপনি পারফেক্ট গ্লো পেতে পারেন।

ধাপ 3: মুলতানি মাটির ফেস প্যাক

উপকরন:
মুলতানি মাটি – 2 চা চামচ
চন্দন গুঁড়া – 1 চা চামচ
টমেটোর রস – প্রয়োজন মতো

ব্যবহারের পদ্ধতি:
প্রথমে একটি পাত্রে মুলতানি মাটির গুঁড়া নিন। এবার এতে চন্দনের গুঁড়ো দিন। এতে টমেটোর রস যোগ করুন।এখন এটি মেশান যতক্ষণ না আপনি একটি মসৃণ পেস্ট পান। এই প্যাকটি সারা মুখে সমান স্তরে লাগান। ১৫ মিনিটের জন্য রেখে দিন এবং তারপর ধুয়ে ফেলুন। তারপরে আপনার মুখ শুকিয়ে নিন।

উপকারিতা- এই ধাপটি ত্বকের নিস্তেজতা ও কষা দূর করে। এটি ব্যবহার করে আপনি একটি উজ্জ্বল মুখ পেতে পারেন। সেরা ফলাফলের জন্য ১৫ দিনে একবার এই ফেসিয়াল করুন।

Related Articles

Back to top button