নিউজরাজ্য

পুরীর হোটেলে কাকিমার সঙ্গে ঘনিষ্ঠ মুহূর্তে যুবক, উত্তেজিত অবস্থায় চরম সিদ্ধান্ত কাকার

ঘটনাটি ঘটেছে খাস কলকাতার বেহালায়

×
Advertisement

নিজের কাকিমার সঙ্গেই সম্পর্কে আছে যুবক। শুধুমাত্র এই সন্দেহের বশবর্তী হয়ে নিজের কাকার হাতে খুন হতে হলো যুবককে। চাঞ্চল্যকর এই ঘটনাটি ঘটেছে বেহালার ঠাকুরপুকুর এলাকায়। অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে তার বিরুদ্ধে অস্বাভাবিক খুনের মামলা দায়ের করেছে পুলিশ প্রশাসন। এখনো পর্যন্ত পাওয়া খবর অনুযায়ী, মৃতের নাম দেবজিত দাস এবং তার কাকিমার নাম মুনমুন দাস। তারা দুজনেই বেহালার এই এলাকার বাসিন্দা। দেবজিত এর কাকার নাম অর্ণব দাস। জানা যাচ্ছে, কিছুদিন আগেই নিজের কাকিমার সঙ্গে পুরীর সমুদ্রে ঘুরতে গিয়েছিলেন দেবজিত। সেখানে সমুদ্রস্নান এর সময় দেবজিত এবং মুনমুনের ঘনিষ্ঠতা খুব একটা ভালো লাগেনি অর্ণবের।

Advertisement

তার মনে দানা বাঁধতে শুরু করে সন্দেহ। জানা যাচ্ছে, তারপর থেকেই তাদের দুজনের ওপরে নজরদারি চালাতে শুরু করেন অর্ণব। জানা যাচ্ছে, এরপর একটি হোটেলের ঘরে দেবজিত ও মুনমুনকে আপত্তিকর অবস্থায় দেখে ফেলেন অর্ণব।

আর এর কারণেই চরমে ওঠে অশান্তি। জানা যাচ্ছে, পুরি থেকে ফেরার সময় ট্রেনেই তাদের দুজনের মধ্যে কার্যত প্রবল তর্কাতর্কি হয়। পরিস্থিতি একেবারে হাতের বাইরে চলে যেত যদি না মাঝের ব্যক্তি অর্থাৎ সহযাত্রী মধ্যস্থতা করে সামলাতেন। তারপর বাড়িতে এসেই আবারো সমস্যা শুরু। গতকাল আবারো অর্ণবের সঙ্গে দেবজিতের হাতাহাতি হয়। সেই সময়ে ব্যাপক মারধরের কারণে প্রচন্ড অসুস্থ হয়ে পড়েন অর্ণব। বুকে ব্যাথা শুরু হয়। হাসপাতালে নিয়ে গেলে ডাক্তাররা তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।

Advertisement

ইতিমধ্যেই অভিযুক্ত অর্ণবকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তার বিরুদ্ধে দায়ের হয়েছে অনিচ্ছাকৃত খুনের মামলা। তবে এই ঘটনার পিছনে আরো কোনো কারণ আছে কিনা সেই নিয়ে তদন্ত শুরু করে দিয়েছে পুলিশ।

Related Articles

Back to top button