দেশনিউজ

করোনার জেরে বেড়েছে নারী নির্যাতন, চাঞ্চল্যকর তথ্য দিল জাতিসংঘ

×
Advertisement

করোনা ভাইরাসের সংক্রমণে গৃহবন্দী গোটা বিশ্বের বেশিরভাগ মানুষ। এরফলেই বেড়ে গেছে পারিবারিক হিংসা ও নারী নির্যাতন। এই বিষয়ে উদ্বেগপ্রকাশ করলেন জাতিসঙ্ঘের মহাসচিব আন্তোনিও গুতোরেস।

Advertisement

রবিবার দেওয়া একটি বিবৃতিতে তিনি বলেন যে, “করোনাভাইরাস সংক্রমণের ফলে লকডাউন বা আরও কিছু কঠোর ব্যবস্থার প্রভাব পড়েছে সামাজিক ও অর্থনৈতিকভাবে। যেখানে মেয়েদের সবচেয়ে বেশি নিরাপদ থাকার কথা সেই বাড়ি থেকেই আসছে হুমকি। সবার কাছে আমার অনুরোধ, বর্তমানের এই কঠিন সময়ে শান্তি বজায় রাখুন।”

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমের তথ্য অনুযায়ী, গত কয়েক সপ্তাহে আমেরিকা, ফ্রান্স, দক্ষিণ আফ্রিকা, অস্ট্রেলিয়া এবং ভারতে নারী নির্যাতন ক্রমে বেড়ে চলেছে। জানা গেছে দক্ষিণ আফ্রিকায় ৯০ হাজারেরও বেশি লিঙ্গভিত্তিক সহিংসতার অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। এর ফলে বেড়ে চলেছে সাহায্য চাওয়ার হার। বিগত কয়েকদিনে অস্ট্রেলিয়া সরকারের কাছে অনলাইনে সাহায্য চাওয়ার হার বেড়েছে ৭৫ শতাংশ, যা অত্যন্ত উদ্বেগজনক।

Advertisement

এই বিষয়ে জাতিসঙ্ঘের মহাসচিব যদিও কোনো দেশের নাম বলেননি। তবে জানিয়েছেন, “কয়েকটি দেশে নারীদের সহায়তা চাওয়ার হার প্রায় দ্বিগুন হয়ে গেছে। বর্তমানে যা পরিস্থিতি তাতে স্বাস্থ্যকর্মী ও পুলিস কর্মীর সঙ্কট দেখা দিয়েছে। এমনকি আর্থিক সাহায্যের কারণে স্থানীয় সহায়তাকারী সংগঠনগুলিও অচল হয়ে পড়েছে। সবমিলিয়ে এক অসহনীয় পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে।”

তবে এই বিষয়ে যাতে যথেষ্ট পদক্ষেপ নেওয়া হয় তাই করোনা মোকাবিলায় গৃহীত পরিকল্পনাগুলিতে নারী সহিংসতা রোধের বিষয়টি অন্তর্ভুক্ত করতে অনুরোধ করেছেন তিনি।

Related Articles

Back to top button