নিউজরাজ্য

দিলীপের পর বিজেপি রাজ্য সভাপতি কে? উঠে আসছে চার নেতা নেত্রীর নাম

দেখে নিন কারা এই চারজন



দিলীপ ঘোষের পর কে হতে চলেছেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি? ইতিমধ্যে বিজেপির অন্দরে এই প্রশ্ন নিয়ে শুরু হয়ে গিয়েছে জল্পনা। সংঘের অন্দরেও এই নিয়ে এবারের শুরু হয়ে তৎপরতা। আরএসএসের সহ সরকার্যবাহ ভি ভাগাইয়া ১৬ ও ১৭ আগস্ট কলকাতায় এসে এই নিয়ে দীর্ঘ বৈঠক সেরে গিয়েছিলেন। সেই বৈঠক থেকে উঠে এসেছিল কে হতে চলেছে বিজেপির পরবর্তী রাজ্য সভাপতি সেই বিষয় নিয়ে বেশ কিছু আলোচনা।

এই বৈঠকে আরএসএসের প্রচারকদের কাছ থেকে পরামর্শ চেয়ে পাঠানো হয়েছিল। ইতিমধ্যেই বেশ কয়েকজনের নাম সামনে উঠে আসছে। বিজেপি রাজ্য সভাপতি হিসেবে দিলীপ ঘোষ এর মেয়াদকাল শেষ হয়ে যাচ্ছে এই নভেম্বর মাসে। এই কারণেই তার আগে ভাগে পরবর্তী রাজ্য সভাপতি বেছে নেবার কাজটি শেষ করতে চাইছে আরএসএস এবং বিজেপি। মনে করা হচ্ছে, এই তালিকায় বেশ ওপরের দিকে রয়েছেন প্রাক্তন কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী দেবশ্রী চৌধুরী।

কয়েকদিন মাত্র হয়েছে তাকে কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী পদ থেকে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। এই কারণেই তাকে এবারে বিজেপি সভানেত্রী করা হতে পারে বলে মনে করছে রাজনৈতিক মহল। আরএসএস এর ঘরের মেয়ে রায়গঞ্জের সাংসদ দেবশ্রী চৌধুরীকে ইতিমধ্যেই বিজেপি পরবর্তী সভানেত্রী হিসেবে দেখতে শুরু করেছেন অনেকে। তবে শুধুমাত্র দেবশ্রী নন, উত্তরবঙ্গের আরো এক নেত্রীর নাম নিয়ে আলোচনা শুরু হয়ে গিয়েছে। উত্তরবঙ্গের অন্য নেত্রী হলেন ইংলিশ বাজারের বিধায়ক শ্রীরূপা মিত্র চৌধুরী। অনেকে আবার ‘মধ্যবিত্ত ভদ্রলোক’ হিসেবে অনির্বাণ গাঙ্গুলীর নাম সামনে আনছেন।

অন্যদিকে আবার বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ নিজে বালুরঘাটের সাংসদ সুকান্ত মজুমদার এর কথা বলেছিলেন। সুকান্ত মজুমদার নিজেও আরএসএস এর সদস্য এবং দিলীপ ঘোষের একজন প্রিয় পাত্র হিসেবে পরিচিত। দিলীপ ঘোষের মেয়াদ ফুরিয়ে যাওয়ার আগে ইতিমধ্যেই বিজেপি এবং আরএসএস এর তরফ থেকে পরবর্তী রাজ্য সভাপতির নাম নিয়ে শুরু হয়েছে জল্পনা। অন্যদিকে বিজেপির রাজ্য সভাপতি মতো একটি গুরুত্বপূর্ণ পদে আরএসএস এর মতামত কিন্তু অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। আরএসএস এর মধ্যে বর্তমানের চারজন নেতা মন্ত্রীর নাম ঘোরাফেরা করছে। এই চারজন হলেন দেবশ্রী চৌধুরী, শ্রীরূপা মিত্র চৌধুরী, অনির্বাণ গঙ্গোপাধ্যায় এবং সুকান্ত মজুমদার। রাজনৈতিক মহলের ধারণা আরএসএসের মতামতকে প্রাধান্য দিয়ে বঙ্গ বিজেপির তরফ থেকে এই চারজনের মধ্যেই একজনকে বিজেপির পরবর্তী রাজ্য সভাপতি করা হতে পারে।

Related Articles

Back to top button