×
টেক বার্তা

সর্বোচ্চ গতি ১২৫ কিমি প্রতি ঘন্টা, এক চার্জে চলবে ১৮০ কিমি, জানুন তিন ইলেকট্রিক মোটরসাইকেল সম্বন্ধে

ইগনিট্রন মোটোক্রপ তাঁদের বহুপ্রতীক্ষিত দুই CYBORG ইলেকট্রিক মোটরসাইকেল লঞ্চ করেছে

Advertisement

ভারতের বাজারে দৈনন্দিন মূল্যবৃদ্ধি এবং সেইসাথে পাল্লা দিয়ে পেট্রোল-ডিজেলের দাম সকল মধ্যবিত্তের প্রাণ ওষ্ঠাগত করে তুলেছে। তাই এমন পরিস্থিতির সাথে মোকাবিলা করার জন্য সবথেকে ভালো বিকল্প হিসেবে জনপ্রিয়তা পাচ্ছে বৈদ্যুতিক স্কুটার বা ইলেকট্রিক ভেহিকেল। এই ধরনের ইলেকট্রিক স্কুটার যেমন উত্তরোত্তর বৃদ্ধি পাওয়া পেট্রোল-ডিজেলের দামের চিন্তা থেকে মুক্তি দেয়, ঠিক তেমনই এইসব স্কুটারগুলি মেইনটেনেন্সের দিক থেকে খুবই সস্তা। শহরের মধ্যে কাজের জন্য ঘোরাফেরা করার জন্য আপনি একটি ইলেক্ট্রিক স্কুটি অবশ্যই ব্যবহার করতে পারেন।

Advertisement

তাই তো বর্তমানে দেশজুড়ে একাধিক স্টাট আপ কোম্পানি ইলেকট্রিক বাইক তৈরীর মার্কেটে প্রতিযোগিতায় নেমেছে। এর মধ্যেই ইগনিট্রন মোটোক্রপ তাঁদের বহুপ্রতীক্ষিত দুই CYBORG ইলেকট্রিক বাইকের ফিচার এবং দাম প্রকাশ করেছে। এই দুই বাইকের জন্য ভারতীয় গ্রাহকরা দীর্ঘদিন ধরে অপেক্ষা করছিল। এবার কোম্পানির ওয়েবসাইটে গিয়ে সরাসরি ইলেকট্রিক বাইক বুক করা যেতে পারে। আসলে এই কোম্পানির বাইকের ইউনিক ডিজাইন এবং সেইসাথে প্রযুক্তির প্রাচুর্য কোম্পানির মূল ইউএসপি। বর্তমানে তারা দুটি ইলেকট্রিক মোটরসাইকেল ভারতের বাজারে এনেছে। একটির নাম Yoda GT 120 ও অন্যটির নাম Bob-E। আসুন আজকের এই প্রতিবেদনে দুই ইলেকট্রিক মোটরসাইকেলের ফিচার এবং দাম সম্বন্ধে জেনে নিন।

Yoda GT 120 ইলেকট্রিক মোটরসাইকেলটির মধ্যে ৪.৬৮ kwh লিথিয়াম আয়ন ব্যাটারি ব্যবহার করা হয়েছে যার জন্য এটির সর্বোচ্চ গতি ১২৫ কিলোমিটার প্রতি ঘন্টা অবধি যেতে পারবে। পাশাপাশি এই ইলেকট্রিক বাইকটি এক চার্জে ১৮০ কিলোমিটার পথ যেতে পারবে। এছাড়া এর লোয়ার ভ্যারিয়েন্ট Yoda তে ৩.২৪ kwh এর লিথিয়াম আয়ন ব্যাটারি ব্যবহার করা হয়েছে এবং এর সর্বোচ্চ গতি ৯০ কিলোমিটার প্রতি ঘন্টা এবং এক চার্জে চলবে ১৫০ কিমি। আপাতত এই মোটরসাইকেল দুটি কালার অপশনে এসেছে। একটি সিলভার এবং অন্যটি ব্ল্যাক। কোম্পানি দাবি করেছে এই ইলেকট্রিক বাইক প্রথম ‘মেড ইন ইন্ডিয়া’ ইলেকট্রিক মোটরসাইকেল।

Advertisement

অন্যদিকে, Bob-E ইলেকট্রিক মোটর সাইকেলে ২.৮৮ kwh লিথিয়াম আয়ন ব্যাটারি ব্যবহার করা হয়েছে যার জন্য এর সর্বোচ্চ গতি ৮৫ কিলোমিটার প্রতি ঘন্টা হতে পারে। এছাড়া এটি এক চার্জে ১১০ কিলোমিটার পথ অতিক্রম করতে পারবে। আপাতত এই মোটরসাইকেল দুটি কালার অপশনে এসেছে। একটি ব্ল্যাক এবং অন্যটি রেড।

জানিয়ে রাখা ভাল, Yoda এবং Bob-E দুই ইলেকট্রিক মোটরসাইকেলে একাধিক উন্নত প্রযুক্তির ব্যবহার করা হয়েছে। এতে ব্যাটারি স্ট্যাটাস ইন্ডিকেটর, ইউএসবি চার্জিং, ব্লুটুথ কানেক্টিভিটি ( জিও লোকেট ও জিও ফেন্সিং সহ) ইত্যাদি ফিচার থাকছে। এছাড়া এই সমস্ত ইলেকট্রিক মোটরসাইকেলগুলিতে তিন ধরনের রাইডিং মোড দেখা যাবে। সেগুলি হল ইকো, নর্মাল এবং স্পোর্ট। বাড়ির চার্জারে ব্যাটারি ফুল চার্জ করতে মাত্র ৪-৫ ঘন্টা সময় লাগবে।

এবার আসা যাক, এই দুই ইলেকট্রিক মোটরসাইকেলের দামের সম্বন্ধে। কোম্পানির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, Yoda ইলেকট্রিক মোটরসাইকেল এর দাম ১ লাখ ৮৪ হাজার টাকা। অন্যদিকে, Yoda GT 120 ইলেকট্রিক মোটরসাইকেলটির দাম রাখা হয়েছে ১ লাখ ৬৪ হাজার টাকার কাছাকাছি। অবশেষে, Bob-E ইলেকট্রিক বাইকের দাম ১ লাখ ১৫ হাজার টাকা। এই সমস্ত দাম সাবসিডি ছাড়া হলে। কারুর সাবসিডি থাকলে আরও সস্তায় বাড়িতে আনতে পারবেন এই তিন ইলেকট্রিক মোটরসাইকেল।

Related Articles

Back to top button