টলিউডবাংলা সিরিয়ালবিনোদন

‘প্ল্যান ছিল চুপিচুপি শেষ করে দেবার’, জটিল অস্ত্রোপচারের পর বাড়ি ফিরে চিকিৎসকদের ধন্যবাদ জানালেন গৌরব রায় চৌধুরী



বাংলা টেলিভিশন জগতের জনপ্রিয় অভিনেতার মধ্যে একজন গৌরব রায় চৌধুরীর। বিগত বেশ কিছুদিন ধরেই নানান অসুখে ভুগছেন অভিনেতা।গত জুন মাসেই হঠাৎ করে অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন ওগো নিরুপমা ধারাবাহিকের আবির। হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন অভিনেতা। টেস্ট করে জানা গিয়েছিল বোন টিউমারে আক্রান্ত হয়েছেন গৌরব রায়চৌধুরী। কি করে আক্রান্ত হন অভিনেতা? গৌরব এক সাক্ষাৎকারে জানান, মাসকয়েক আগে জিম করতে গিয়ে তিনি কনুইতে ব্যথা অনুভব করেছিলেন। পরবর্তী সময়ে ডান হাতের কনুইতে বোন টিউমার ধরা পড়েছে তাঁর।

আর সেই টিউমার অস্ত্রোপচার না করলে কমবেনা। আর সে জন্যই গত সপ্তাহে কলকাতার এক  বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন গৌরব। গত সোমবার অভিনেতার টানা ৬ বছর ধরে জটিল অস্ত্রোপচার হয় হাতের সেই টিউমারটি। অস্ত্রোপচারটা বেশ কঠিন ছিল। অভিনেত্রীর শারীরিক পরিস্থিতি নিয়ে অনেকে চিন্তায় ছিলেন। তবে অস্ত্রোপচার শেষে নিজেই অনুগামীদের নিজের হেল্থ আপডেট দিয়েছেন গৌরব। সোশ্যাল মিডিয়ায় নিজের অনুরাগীদের উদ্দেশ্যে তিনি লিখেছেন’ এই যুদ্ধে হার নিশ্চিত ছিল, হাতটার অর্ধেকের বেশি ড্যামেজ হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা ছিল প্রবল। কিন্তু চিকিৎসকরা ৬ ঘন্টার যুদ্ধ চালিয়ে শেষমেষ জিতিয়ে দিল আমায়, আর আমার হাতটাকে। ধন্যবাদ দিলেও বোধহয় কম বলা হয়ে যাবে। তবুও ধন্যবাদ চিকিৎসকদের।’

এখন অভিনেতা বিশ্রামেই আছেন। সম্প্রতি অভিনেতা নিজের ইন্সটাগ্রাম হ্যান্ডেক্ব হাসপাতালের ডাক্তারদের উদ্দেশ্যে কৃতজ্ঞতা জানিয়ে এক খোলা চিঠি লিখলেন নিজের ইনস্টাগ্রামে নিজের একটি ছবি পোস্ট করেছেন গৌরব। যেখানে প্রথমেই তিনি বলেছেন, ‘ডঃ গৌরব নন্দী ওই যে বললাম ধন্যবাদ তও বোধহয় কম হয়ে যাবে। বিগত ২ বছর ধরে অদ্ভুতভাবে লুকিয়ে ছিল টিউমার। যেটা নীরবে শেষ করার প্ল্যান করছিল, কিন্তু আপনি ও আপনার টিমের সকলে রুখে দিয়েছেন সেটা’।

এরপর অভিনেতা আরো জানান, ‘জানি আমার মত লক্ষ কোটি মানুষের আপনারা রোজ এভাবেই জীবন দান করেন। আমি মার্ভেলস ইউনিভার্সের ফ্যান তবে বাস্তবে ডাক্তার ইউনিভার্সকেই বেশি বিশ্বাস করি। কিছুদিনের বিশ্রাম নিয়েই হয়তো রিল লাইফে ফিরব। আপনারা ভালো থাকুন সুস্থ থাকুন’। শেষে ডাক্তার সহ হাসপাতাল ও তাদের বেশ কিছু স্টাফদের ধন্যবাদ জানাতে ভোলেননি অভিনেতা। উল্লেখ্য, কিছুদিন আগেই চোখের ইনফেকশন নিয়ে ভর্তি হয়েছিলেন হাসপাতালে। সেই সময় অভিনেতার জন্মদিন পড়ে। সেসময় হাসপাতালের বেডে বসেই কেটেছিলেন জন্মদিনের কেক। এরপর খানিক সুস্থ হয়েই কাজে ফিরেছিলেন ‘ওগো নিরুপমা’ ধারাবাহিকের অন্তিম পর্বের শ্যুটিং সারতে।

Related Articles

Back to top button