আন্তর্জাতিকদেশনিউজ

পুতিনের সঙ্গে ফোনে কথা বললেন প্রধানমন্ত্রীর নরেন্দ্র মোদি, কথা হল পৌনে এক ঘণ্টা

কি নিয়ে কথা বললেন প্রধানমন্ত্রী এবং পুতিন?



তালিবান বিষয়টি নিয়ে বর্তমানে দেশ নায়কদের মধ্যে তুঙ্গে জল্পনা।ইতিমধ্যেই এই তালিবান সংকট মাথাব্যথা হয়ে গিয়েছে বিভিন্ন দেশের জন্য। আর এই দেশের তালিকায় রয়েছে অবশ্যই ভারত। তালিবান সংকট নিয়ে আগেও জার্মান প্রেসিডেন্টের সঙ্গে কথা বলেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। আর এবারে সরাসরি রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে কথা বললেন প্রধানমন্ত্রীর নরেন্দ্র মোদি।

আফগানিস্তান সংকট নিয়ে সোমবার জার্মান চ্যান্সেলর অ্যাঞ্জেলা মার্কেলের সঙ্গে ফোনে কথা বলেছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তারপরে মঙ্গলবার দুপুরে প্রধানমন্ত্রী এ বিষয়ে কথা বললেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে। জানা যাচ্ছে এ দুজনের মধ্যে মোটামুটি পৌনে এক ঘন্টা মত কথা হয়েছে। আফগানিস্তানের তালিবান সংকট যেভাবে মাথাচাড়া দিয়ে উঠেছে সেই জন্যই এখন বিশ্বের প্রত্যেকটি দেশের দেশনায়ক দের কাছে এটি একটি বিশেষ চিন্তার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। এই কারণেই মূলত রাশিয়ার সঙ্গে কথা বলেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

আফগানিস্তানের এই পরিস্থিতি নিয়ে মোদি এবং পুতিনের মধ্যে বিস্তারিত আলোচনা হয়েছে বলে জানা যাচ্ছে। পাশাপাশি জি – ৭ সামিটে তালিবান প্রসঙ্গে ভারতের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে অনেকের কথা হতে পারে। তবে তার আগেই সরাসরি নিজেই ভ্লাদিমির পুতিনকে ফোন করে একান্ত আলাপচারিতায় করে নিলেন মোদি এবং পুতিন। আফগানিস্তানের এই পরিস্থিতিতে আন্তর্জাতিক সম্পর্কের সাপেক্ষে বিশেষ তাৎপর্যপূর্ণ হয়ে উঠেছে এই বৈঠক।

মঙ্গলবার আফগানিস্তান ইস্যু নিয়ে আলোচনা সেরে পুতিনের সঙ্গে আবারও সুসম্পর্ক তৈরি করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। বিভিন্ন সময় বিভিন্ন বিষয়ে পুতিনের সঙ্গে আলোচনা করে এসেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। এখনো পর্যন্ত কাবুল এবং আফগানিস্তানের বিভিন্ন জায়গায় প্রচুর ভারতীয় আটকে পড়ে রয়েছেন। তাদের সকলকে ভারতে ফেরানোর জন্য ইতিমধ্যেই তৎপর হয়ে উঠেছে কেন্দ্রীয় সরকার। বিভিন্ন দেশের সঙ্গে কথা বলে সামগ্রিক পরিস্থিতির বিষয় নিয়ে চিন্তা করছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। ভারতীয় বিমান বাহিনী এবং ভারতীয় সেনা প্রস্তুত হচ্ছে আফগানিস্তানের সঙ্গে যদি ভারতের যুদ্ধ হয় তখন সেই অবস্থায় ভারতের পরিস্থিতি সাম্লানর জন্য।

Related Articles

Back to top button