টলিউডবিনোদন

মহানায়কের স্বত্ত্ব নিয়ে আইনি জটিলতা, বিতর্কের মুখে সৃজিত-অতনুর দুই ছবি

অনেক বছর হল মহানায়ক আর আমাদের মধ্যে নেই। মহানায়ক না থাকলেও আছে তাঁর শিল্পকর্ম। কিন্তু উত্তম কুমারের জীবন কে কেন্দ্র করে এবার আইনি জটে মহানায়ক এর পরিবার। এবার মহানায়ককে নিয়ে চরম দ্বন্দ উঠে এল টলিপাড়ায়। গোল বাঁধল মহানায়কের স্বত্ত্ব নিয়ে। আসলে উত্তমকুমারকে নিয়ে টলিউডে এইমুহূর্তে মুক্তি পাওয়ার কথা দুটি ছবির। একদিকে পরিচালক অতনু বসু তৈরি করছেন ‘অচেনা উত্তম’ এবং দ্বিতীয় ছবিটি বানাচ্ছেন পরিচালক সৃজিত মুখোপাধ্যায়। সেই ছবির নাম ‘অতি উত্তম’। আর এই দুই সিনেমা নিয়ে ঝগড়ার সূত্রপাত।

‘অচেনা উত্তম’-এ উত্তমকুমারের চরিত্রে অভিনয় করছেন শাশ্বত চট্টোপাধ্যায়, সুচিত্রা সেনের ভূমিকায় ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত আর সাবিত্রী চট্টোপাধ্যায়ের চরিত্রে দেখা যাবে সকলের প্রিয় দিতিপ্রিয়া রায়কে। গত বছর করোনা আবহেই এই ছবির ঘোষণা করেছিলেন পরিচালক অতনু। প্রকাশ্যে এনেছিলেন ছবির কাস্টিং এর নামও। এদিকে চলতি বছরে উত্তমকুমারের জন্মদিনে সৃজিত মুখোপাধ্যায় সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করেন উত্তমওকুমারের ওপর তাঁর পরবর্তী ছবি ‘অতি উত্তম’-এর পোস্টার । আর এতেই বাঁধলো গোল।

ইতিমধ্যে আইনি নোটিশ পৌছোলো মহানায়কের বাড়িতে, জানা গেছে আইনের সাহায্য নিয়েই পাল্টা জবাব দেবেন উত্তম কুমারের পরিবারের সদস্যরা। সূত্র থেকে জানা গিয়েছে, অচেনা উত্তমের প্রযোজনা সংস্থা অলকানন্দা আর্টসের সঙ্গে উত্তম কুমারের পরিবারের একটি চুক্তি স্বাক্ষর হয়েছিল যেখানে স্পষ্ট করে বলা হয়েছিল শুধুমাত্র তারা ছাড়া আর কেউ উত্তম কুমারের ব্যক্তিগত জিনিস ব্যবহার করতে পারবেন না। এমনকি উত্তম কুমারের ছবি ও নাম ব্যবহার করা যাবে না।

এমনকি এর জন্য বড় টাকার অংক উত্তমকুমারের পরিবার থেকে মহানায়ক এর জীবনের স্বত্ত্ব কিনেছে এই প্রযোজনা সংস্থা। অন্যদিকে পরিচালক সৃজিত মুখোপাধ্যায়ের অতি উত্তম ছবিতে উত্তম কুমারের নাতির চরিত্রে অভিনয় করছেন গৌরব চট্টোপাধ্যায়। এমনকি সৃজিতের এই ছবির প্রথম পোস্টারে দেখা যাচ্ছে উত্তমকুমারের নিজের ছবি এবং রয়েছে নাম ও। এদিকে অলকানন্দা আর্টসের চুক্তিপত্রে নাকি এও লেখা হয়েছিল মহানায়কের পরিবারের কোনও সদস্য তাঁদের আসল পরিচয় নিয়ে কোনও ছবিতে অভিনয় করতে পারবেন না। যদি কেউ অভিনয় করেন তাহলে অলকানন্দা আর্টসের তরফ থেকে অনুমতি নিতে হবে। গোটা চুক্তিপত্রটি হয়েছিল মোটা টাকার বিনিময়ে।

সৃজিতের এই সিনেমাতে গৌরবের অভিনয় করা, মহানায়কের ছবি ব্যবহার করার বিষয় নিয়ে অলকানন্দা আর্টসের থেকে কোনরকম অনুমতি নেওয়া হয়নি। সেই কারণেই প্রযোজনা সংস্থার পক্ষ থেকে আইনি নোটিশও পাঠানো হয়েছে উত্তমকুমারের পরিবারকে এবং সৃজিত মুখোপাধ্যাযয়ের ছবির প্রযোজনা সংস্থা ক্যামেলিয়া প্রোডাকশন হাউজে।

এই বিষয়ে অবশ্য গৌরব এক সংবাদমাধ্যমে জানিয়েছেন, প্রথমত পরিচালক সৃজিত মুখোপাধ্যায় উত্তম কুমারের জীবন নিয়ে কোনো ছবি বানাচ্ছেন না, এই ছবিতে শুধুমাত্র উত্তম কুমারের কয়েকটা ছবি ক্লিপিংস ব্যবহার করা হয়েছে মাত্র। আর সেই সব ছবির স্বত্ত্ব আর গৌরব চট্টোপাধ্যায়ের পরিবারের কাছে নেই। আর সিনেমা করার চুক্তি স্বাক্ষর হয়েছে অনেক আগে। গৌরব আরো জানান, মহানায়কের জীবনীর সত্য নিয়ে যদি টাকার কথা ওঠে তাহলে সেক্ষেত্রে তার মূল্য হওয়া উচিত কোটির ওপর। আর সেই টাকা তাদের দেওয়া হয় নি। তাই এই মুহূর্তে উত্তম কুমারের জীবনের সত্যতা নিয়ে নানান তর্ক-বিতর্ক হচ্ছে। এখন এটাই দেখার এই মামলার কি পরিণতি হয়। অবশ্য তা সময় বলবে।

Related Articles

Back to top button