জীবনযাপনসৌন্দর্য

Holi Skin Care Tips: হোলি খেলার সময় এই ৪টি জিনিস মাথায় রাখুন, ত্বকের ক্ষতি হবে না

×
Advertisement

বসন্ত উৎসব অর্থাৎ হোলি 18ই মার্চ। এই দিনে হোলি খেলা হয় লাল, হলুদ, নীল, গোলাপি রঙে রাগিয়ে দেওয়া হয় কাছের ও ভালোবাসার মানুষদের। কিন্তু আজকাল এসব রঙে অনেক ধরনের রাসায়নিকও মেশানো হয়, যা আমাদের ত্বকের ক্ষতি করতে পারে। এমন পরিস্থিতিতে হোলি খেলার পাশাপাশি ত্বকের যত্ন নেওয়াও খুব জরুরি, কারণ ত্বকের যত্ন না নিলে ফুসকুড়ির পাশাপাশি শুষ্কতার সমস্যাও হতে পারে।

Advertisement

আমরা দেখি হোলির সময় ত্বকে রঙের কারণে অনেক সময় ত্বকে অ্যালার্জি এবং লাল ফোলাভাব দেখা দেয়। ত্বক বিশেষজ্ঞরা বলছেন, কেমিক্যাল সমৃদ্ধ রং আপনার ত্বকের অনেক ক্ষতি করে। এই কারণেই হোলি খেলার সময় কিছু টিপস অবলম্বন করা উচিত, যাতে ত্বকে কোনো ধরনের সমস্যা না হয়। হোলি খেলার সময় এই বিষয়গুলো মাথায় রাখুন।

১) আচ্ছাদিত পোশাক পরুন:
হোলির সময় এমন পোশাক পরা উচিত যাতে ত্বক পুরোপুরি ঢেকে যায়। রঙের সাথে সরাসরি যোগাযোগ এড়াতে এটি একটি দুর্দান্ত উপায়৷ সহজেই শুকিয়ে যায় এমন পোশাক পরুন৷ অনেকক্ষণ ভিজিয়ে রাখা কাপড় পরলে ত্বকে ফুসকুড়ি হতে পারে। বেশি ঢেকে রাখা কাপড় পরলে আপনার ত্বককে ক্ষতির হাত থেকে রক্ষা করবে এবং আপনি হোলিও পূর্ণরূপে উপভোগ করতে পারবেন।

Advertisement

২) জৈব রং সঙ্গে খেলুন:
রাসায়নিক সমৃদ্ধ রং আপনার ত্বকের ক্ষতি করতে পারে। এই সমস্যা এড়াতে, আপনি জৈব রং চয়ন করতে পারেন। এগুলো আপনাকে ত্বক সংক্রান্ত সমস্যা থেকে রক্ষা করতে কাজ করবে। এর মধ্যে রয়েছে ব্রণ এবং একজিমার মতো ত্বক সংক্রান্ত সমস্যা।

৩) রঙ অপসারণ করতে বাড়িতে তৈরি স্ক্রাব ব্যাবহার করুন:-
হোলি খেলার পর রং দূর করতে ঘরে তৈরি স্ক্রাবও ব্যবহার করতে পারেন। এই স্ক্রাব তৈরি করতে বেসন, চালের গুঁড়া, দই ও গোলাপজল একসঙ্গে মিশিয়ে নিন। এটি দিয়ে ত্বকে ম্যাসাজ করুন। এর পর ঠান্ডা জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। দেখবেন সহজেই ত্বকের রং বের হতে শুরু করবে।

৪) গায়ের রং দূর করতে ক্রিম এবং লেবু ব্যবহার করুন:-
হোলির রং দূর করতে মানুষ বারবার সাবান ও ফেসওয়াশ ব্যবহার করে। এতে করে ত্বক খুব শুষ্ক হয়ে যায়, যার কারণে ত্বক টানটান হয় ও চুলকায়। অতএব, আপনি ক্রিমে লেবু যোগ করে রঙ অপসারণ করতে পারেন। এটি করলে আপনি শুষ্কতা এবং জ্বালা থেকে রক্ষা পাবেন।

এই তথ্যের যথার্থতা, সময়োপযোগীতা এবং সত্যতা নিশ্চিত করার জন্য সর্বাত্মক প্রচেষ্টা করা হয়েছে। তবে এটা আমাদের নৈতিক দায়িত্ব নয়। আমরা অনুরোধ করছি, দয়া করে কোনো প্রতিকার চেষ্টা করার আগে আপনার ডাক্তারের সাথে পরামর্শ করার জন্য। আমাদের উদ্দেশ্য শুধুমাত্র আপনাকে তথ্য প্রদান করা.

Related Articles

Back to top button