টলিউডবিনোদনভাইরাল & ভিডিও

সাবলীল যৌনতার দৃশ্যে ফিরছেন বাংলার দুই নায়িকা, দেখুন ভাইরাল ভিডিও

×
Advertisement

সম্প্রতি লঞ্চ হয়েছে ওয়েব সিরিজ ‘হ্যালো’র তৃতীয় সিজন ‘হ্যালো-3’-এর  ট্রেলার।  ট্রেলারে দেখানো হয়েছে অবাধ যৌনতা ও নগ্নতা। অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা সরকার (Priyanka sarkar) সোশ্যাল মিডিয়ায় এই ট্রেলারটি শেয়ার করেছেন।  বাংলা ওয়েব সিরিজ বা ফিল্ম এই মুহূর্তে হাতিয়ার করছে যৌনতা বা নগ্নতাকে।  ‘হ্যালো-3’-র ট্রেলার ভাইরাল হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে নেটিজেনদের অনেকেই প্রশ্ন তুলেছেন, বাংলা ওয়েব সিরিজ মানেই যৌনতা কেন!  যদি বিচার করা হয়, তাহলে এই প্রশ্ন অনেকাংশে যুক্তিসঙ্গত। বাংলার পরিচালকরা এবং মিডিয়ার একাংশ মনে করেন, কোনো ওয়েব সিরিজ বা ফিল্মে যৌনদৃশ‍্য দেখানো মানেই বাংলা এন্টারটেনমেন্ট বড় হয়ে গেল। কিন্তু আগে মনে রাখতে হবে, বাংলা এন্টারটেনমেন্ট কি সত্যিই শিশু ছিল?  যাঁরা আজ বাংলা এন্টারটেনমেন্টে যৌনতার প্রয়োজনের কথা বলছেন, তাঁদের পূর্বসূরিরাই একসময় মহানায়িকা সুচিত্রা সেন (suchitra sen) অভিনীত ‘ফরিয়াদ’ দেখে নাক সিঁটকেছিলেন।  যাঁরা আজ বাংলা সিনেমা অ্যাডাল্ট হয়ে যাওয়ার জন্য গর্ব অনুভব করেছিলেন, তাঁরাই একদিন ‘ব্যান্ডিট কুইন’-এ ফুলন দেবীর চরিত্রে সীমা বিশ্বাস (Sima biswas)-এর নগ্নতা দেখে সিনেমাটির পরিচালক শেখর কাপূর (shekhar kapoor)-কে চরিত্রহীন বলেছিলেন।  অথচ, ফুলন দেবীর বায়োপিকের জন্য এই দৃশ্যটি অত্যাবশকীয় ছিল।

Advertisement

বাংলা ফিল্ম বা ওয়েব সিরিজের যদি শৈশবকাল বলে কিছু থাকে, তবে তা এখন।  বর্তমানে না বুঝেই প্রয়োজন ছাড়াই দর্শক টানার জন্য নগ্নতা ও যৌনতাকে ব্যবহার করা হয়।  যখন বাংলা ফিল্ম বা ওয়েব সিরিজের কনটেন্ট সত্যিই যুগোপযোগী হবে এবং প্রয়োজনমতো যৌনতা ও নগ্নতার ব্যবহার হবে, সেদিন বাংলা এন্টারটেনমেন্ট অ্যাডাল্ট হবে, ম্যাচিওর হবে।

ওটিটি প্ল‍্যাটফর্ম হইচই-এর ওয়েব সিরিজ ‘হ্যালো-3’-তে অভিনয় করেছেন রাইমা সেন (Raima sen), প্রিয়াঙ্কা সরকার (Priyanka sarkar), পামেলা ভুতোরিয়া (Pamela bhutoria)। এক পুরুষের পিঠে লাল স্কেচপেন দিয়ে প্রিয়াঙ্কার ‘হ্যালো’ লিখে দেওয়ার দৃশ্যটি নেটিজেনদের মধ্যে কৌতূহলের সৃষ্টি করেছে। আগামী  22 শে জানুয়ারি হইচই-এ রিলিজ করতে চলেছে ‘হ্যালো-3’।

Advertisement

Related Articles

Back to top button