নিউজরাজ্য

এবার রাজ্যের স্কুলপাঠ্যে ‘করোনা ভাইরাস’, স্কুল দফতরকে নির্দেশ শিক্ষামন্ত্রীর

মানুষের মধ্যে সচেতনতার বোধ জাগিয়ে তুলতে সিলেবাসে কিছু বদল আনতে চায় রাজ্য সরকার। এবার রাজ্যে স্কুল পাঠ্যে প্রথম থেকে দ্বাদশ শ্রেণী পর্যন্ত অন্তর্ভুক্ত হবে করোনা ভাইরাস।

করোনা আবহে ছেয়ে গিয়েছে গোটা বিশ্ব। আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা আকাশ ছোয়া। বিশ্ব তথা দেশেও নিরন্তর বেড়ে চলেছে আক্রান্তের সংখ্যা। এবার মানুষের মধ্যে সচেতনতার বোধ জাগিয়ে তুলতে সিলেবাসে কিছু বদল আনতে চায় রাজ্য সরকার। এবার রাজ্যে স্কুল পাঠ্যে প্রথম থেকে দ্বাদশ শ্রেণী পর্যন্ত অন্তর্ভুক্ত হবে করোনা ভাইরাস। এবিষয়ে স্কুল শিক্ষা বিশেষজ্ঞ কমিটিকে বিস্তারিত পরিকল্পনার নির্দেশ দিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়। স্কুল শিক্ষা দফতরের চেয়ারম্যান অধ্যাপক অভীক মজুমদারের কথায়, “ছোটরাই বাড়ির বড়োদের মধ্যে জাগিয়ে তুলতে পারবে করোনা ভাইরাসের সচেতনতা”।

করোনা কী? এই মারণ ভাইরাস আসলে কীভাবে ছড়াতে পারে? এই ভাইরাস থেকে প্রতিকারের উপায় ও আরও বিভিন্ন বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনার মাধ্যমে তা অন্তর্ভুক্ত হবে স্কুল পাঠ্যে। ইতিমধ্যে রাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয় পাঠ্যে কোভিড-১৯ প্রসঙ্গ ঢুকে পড়েছে। জানা গিয়েছে, সিধো-কানহো-বিরসা বিশ্ববিদ্যালয়ের পাঠ্যে করোনা ভাইরাস সম্পর্কে বিস্তারিত বিবরণের বিষয়টি রেখেছে কতৃপক্ষ। এছাড়া লখনউ বিশ্ববিদ্যালয় এব্যাপারে ভাবনাচিন্তা করছে। এবার পশ্চিমবঙ্গের স্কুল পাঠ্যে প্রবেশ করবে করোনা ভাইরাস সম্পর্কিত বিষয়।

স্কুল শিক্ষা দফতর জানিয়েছে, কোন শ্রেণী থেকে করোনার সচেতনতার বিষয়টি পাঠ্যে রাখা হবে এবং ছাত্রছাত্রীরা এবিষয়টির মাধ্যমে নিজেদের মধ্যে সচেতনতা গড়ে তুলবে কোন পথে সে বিষয়ে দপতর চিকিৎসক ও মনোবিদদের সঙ্গে আলোচনা করবে। চিকিৎসকেরাই বলতে পারবেন। তাই এবার রাজ্যের স্কুল পাঠ্যেও আসতে চলেছে করোনা ভাইরাসের মতন বিষয়। স্কুল শিক্ষা দফতরের এক আধিকারিক জানিয়েছেন, “প্রতিটি বইয়ের প্রথম পাতাতেই সংবিধানের প্রস্তাবনা তাকে। আমরা করোনা সম্পর্কিত বিষয়টি ১-২ পাতা পিছনে রাখব”।

Related Articles

Back to top button